scorecardresearch

বড় খবর
এক ফ্রেমে কেন্দ্রীয় কয়লামন্ত্রী ও কয়লা মাফিয়া, বিজেপিকে বিঁধলেন অভিষেক

ইস্টবেঙ্গলের জেতা ম্যাচ হাতছাড়া শেষ মুহূর্তের গোলে

কেরালা ম্যাচ খেলতে নামার আগে ইস্টবেঙ্গল ৪টে হার এবং একটা ড্র সমেত লিগ তালিকায় নীচে ছিল। কিবু ভিকুনার দলেও ধারাবাহিকতার অভাব।

ইস্টবেঙ্গলের জেতা ম্যাচ হাতছাড়া শেষ মুহূর্তের গোলে

ইস্টবেঙ্গল: ১(কোনে-আত্মঘাতী)

কেরালা ব্লাস্টার্স: ১ (জিকসন সিং)

শেষ মুহূর্তে গোল হজম করে জেতা ম্যাচ ড্র করে বসল ইস্টবেঙ্গল। নির্ধারিত সময়ে ১-০ গোলে এগিয়ে ছিল ইস্টবেঙ্গল। তবে শেষ মিনিটে সংযোজিত সময়ে ইস্টবেঙ্গল গোল হজম করে বসল। আগের ম্যাচেই জোড়া গোল করেছিল ইস্টবেঙ্গল। এবার কেরালার বিরুদ্ধে কর্তৃত্ব নিয়ে খেলেও পয়েন্ট নষ্ট করে মাঠ ছাড়ল ফাউলারের দল।

১৪ মিনিটেই এদিন প্রথম গোল পায় ইস্টবেঙ্গল। মাঘোমা রফিকের উদ্দেশে দারুণ পাস বাড়িয়েছিলেন। সেই বল রফিক স্কোয়ার পাস করেন ফার বক্সে। তবে বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে নিজেদের গোলেই বল ঢুকিয়ে দেন বাকারি কোনে।

আত্মঘাতী গোলে লিড নেওয়ার পর গোটা ম্যাচ জুড়েই ইস্টবেঙ্গল একাধিক সুযোগ তৈরি করে। যদিও তা কাজে লাগাতে পারেনি লাল হলুদ বাহিনী।

গত ম্যাচের একাদশ থেকে এদিন চারটে পরিবর্তন করেন কোচ ফাউলার। চোট সরিয়ে ফেরানো হয় ফক্সকে। জাইরুকে প্রথমবার খেলানো হয় একাদশে। জেজে এবং বলবন্তকে সরিয়ে আক্রমণে নামানো হয় সুরচন্দ্র এবং হাওবেমকে।

বিরতির পর আক্রমণে চাপ বাড়ায় কেরালা। টানা আক্রমণ রুখে দিচ্ছিলেন স্কট নেভিলরা। তবে একদম শেষ লগ্নে সাহালের এসিস্ট থেকে গোল করে যান জিকসন সিং।

ইস্টবেঙ্গল:
দেবজিত, স্কট নেভিল, ড্যানিয়েল ফক্স, ম্যাটি স্টেইনম্যান, মহম্মদ রফিক, জ্যাক মাঘোমা, এন্থনি পিকলিংটন, বিকাশ জাইরু, শেহনাজ সিং, সুরচন্দ্র সিং, হাওবাম সিং (ইয়ানমান সিং)

কেরালা ব্লাস্টার্স:
আলবিনো গোমেজ, বাকারি কোনে, নিশু কুমার, সতেইসেন সিং, রোহিত কুমার, ফাকুন্দ পেরেরা, জেসেল কারনেইরো, রাহুল ভিপি, ভিসেন্তে গোমেজ, কোস্টা হামইনেশু, গ্যারি হুপার

আরো পড়ুন: ফাউলারের কথা না শুনলে পস্তাবে ইস্টবেঙ্গল, বলে দিলেন বেঙ্গালুরু বস

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Isl 2020 east bengal vs kerala blastere match report and analysis