scorecardresearch

কৃষ্ণের অভাব পূরণে নয়া স্ট্র্যাটেজি বাগান কোচ ফেরান্দোর! পেত্রাতোসই তুরুপের তাস

কয়েকদিন আগেই দিমিত্রস পেত্রাতোসকে সই করিয়েছে এটিকে মোহনবাগান। অজি স্ট্রাইকারকে ঘিরে বাগানের উৎসাহে খামতি নেই।

এটিকে মোহনবাগানে এবার আগমন ঘটেছে অস্ট্রেলীয় বিশ্বকাপারের। চলতি গ্রীষ্মে রয় কৃষ্ণ, ডেভিড উইলিয়ামসকে ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল এটিকে মোহনবাগান। দুই তারকার শূন্যস্থান ভরাট করতে বাগান বেছে নিয়েছে দিমিত্রস পেত্রাতোসকে।

পেশাদারি ফুটবলে এক দশকের অভিজ্ঞতা নিয়ে ভারতে পা রাখছেন পেত্রাতোস। ২৯ বছরের তারকা ফরোয়ার্ডের এশিয়ার একাধিক দেশে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। গত একদশকে এ লিগ, কোরিয়ান লিগ ছাড়াও সৌদি আরবের লিগে খেলেছেন সকারুজ এই তারকা। আপাতত তাঁর কাছে এটিকে মোহনবাগানে ডেভিড উইলিয়ামস, রয় কৃষ্ণদের শূন্যস্থান পূরণ করার চ্যালেঞ্জ।

আরও পড়ুন: ইস্টবেঙ্গল নয়, ISL-এ এই দলের কোচিংয়ের দৌড়েও ছিলেন কনস্টানটাইন! ইন্টারভিউ পর্যন্ত গড়ায় নিয়োগ

কেমন ধাঁচের প্লেয়ার পেত্রাতোস: আক্রমণাত্মক ধাঁচের ফুটবল খেলতে পছন্দ করেন পেত্রাতোস। ম্যাচের আক্রমণে সবসময় যুক্ত থাকতে দেখা যায় তাঁকে। ২৯ বছরের তারকা একজন রাইট উইঙ্গার অথবা দ্বিতীয় স্ট্রাইকার হিসাবেও খেলতে পারেন। অতীতে দলকে নেতৃত্ব দিতেও দেখা গিয়েছে তাঁকে। এই কারণেই তাঁকে সম্ভবত ৯ নম্বর জার্সি দেওয়া হচ্ছে।

৫’৯ ইঞ্চির তারকা মোটেই শরীরী ফুটবলে বিশ্বাস করেন না। এই দুর্বলতা ঢেকে দেন তিনি তীব্র পেসে প্রতিপক্ষ অর্ধে হাই প্রেসিং ফুটবলে অপারেট করে। গত মরশুমে এ লিগে ম্যাচ প্রতি গড়ে পেত্রাতোসের ফাউলের সংখ্যা ছিল ২টি। এতেই প্রমাণিত কতটা আগ্রাসী ফুটবল তাঁর রক্তে।

আরও পড়ুন: ইস্টবেঙ্গলের অফার প্রত্যাখ্যান করে কেন MLS-এ ব্রাউন! অবশেষে মুখ খুললেন জামাইকান

অস্ট্রেলিয়ান এই মিডফিল্ডার আবার লিঙ্ক-আপ প্লেতে ফাইনাল থার্ডে মুভমেন্টে সৃজনশীলতা এনে দিতে সিদ্ধহস্ত। সতীর্থদের জন্য জায়গা তৈরি করে দিয়ে গোল করানোয় পেত্রাতোসের জুড়ি মেলা ভার।

১৮ গজ বক্সের কিং তিনি। ম্যাচের যেকোনও মুহূর্তে গোল করে রং বদলে দেওয়ার সামর্থ রয়েছে তাঁর। প্রতিপক্ষ অর্ধে সামান্যতম সুযোগ পেলেই তিনি তা সদ্ব্যবহার করতে পারেন।

এটিকে মোহনবাগানে কতটা ফিট করবে পেত্রাতোসের স্টাইল: এটিকে মোহনবাগান হুয়ান ফেরান্দোর কোচিংয়ে বল পায়ে রেখে আক্রমণ সাজায়। পেত্রাতোস এমন। স্টাইলের জন্য একদমই আদর্শ। রয় কৃষ্ণের অভাব একদমই অনুভূত হবে না পেত্রাতোসের উপস্থিতিতে। জায়গা বদল করে অজি তারকাকে খেলানো হতে পারে যাতে আক্রমণ শানানোর একাধিক আউটলেট তৈরি হয়। আক্রমণে ফ্লোটার হিসাবে নামানো হতে পারে তাঁকে। জায়গা বদল করে প্রতিপক্ষ ডিফেন্সে অনিশ্চয়তা আমদানি করবেন তিনি।

পেত্রাতোসের আগমনে হুয়ান ফেরান্দোর আক্রমণে অনেক অপশন খুলে যাবে। গত মরসুমে ওয়েস্টার্ন সিডনি ওয়ান্ডার্সের হয়ে সেন্টার ফরোয়ার্ড তো বটেই আক্রমণাত্মক মিডফিল্ডার এবং উইঙ্গার হিসাবেও খেলেছেন। তিন পজিশনেই সফল তিনি। স্প্যানিশ কোচ যে এরকমই একজনকে চাইছিলেন, তা দিনের মত স্পষ্ট।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Isl transfer how australian world cupper dimitrios petratos would fit in atk mohun bagans juan ferrando system