বড় খবর

এবার IPL-এ খেললেই ১৫০ কোটি উপার্জন করবেন ধোনি! চোখ কপালে ক্রিকেট বিশ্বের

সব মরশুম মিলিয়ে ধোনি শীর্ষে। আবার বিরাটের থেকে এগিয়ে রোহিত শর্মা। আইপিএলে প্রতিনিধিত্ব করে রোহিত শর্মার উপার্জন ১৩১ কোটি।

সামনেই আইপিএল। সেই আইপিএলে যোগ দিলেই ১৫০ কোটির ক্রিকেটারের তকমা পেয়ে যাবেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। আইপিএলে মার্কি ক্রিকেটারদের বেতনের দিক থেকে শুরু থেকেই টেক্কা দিয়ে আসছেন এমএসডি। সব সংস্করণ মিলিয়ে ধোনির আইপিএল-উপার্জন ইতিমধ্যেই সবার থেকে বেশি- ১৩৭ কোটি। এবার আসন্ন আইপিএলে যোগ দিলেই ধোনির নামের পাশে বসে যাবে ১৫০ কোটির তকমা।

প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে এই নজির গড়বেন তিনি। ২০০৭ সালে টি২০ বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন করেন তিনি দেশকে। তারপরেই প্রথমবার আইপিএলের নিলামে সবথেকে বেশি দাম পেয়েছিলেন তিনি- ১.৫ মিলিয়ন ডলার। সেই সময় এই পরিমাণ অর্থ চিন্তারও বাইরে ছিল।

আরো পড়ুন: চতুর্থ টেস্ট খেলতে নিমরাজি রাহানেরা, সফরের মাঝেই মহা সংঘাতে দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড

২০০৮ সালে আইপিএলের ফাইনালে পৌঁছায় সিএসকে। ২০১০ আইপিএল চ্যাম্পিয়ন করেন দলকে। তারপরের বছরেই আবার বিশ্বকাপ জয়। প্রত্যেক বছরেই একের পর এক সাফল্যের মাইলস্টোন গড়েছেন তিনি। উত্তরোত্তর জনপ্রিয়তায় সিএসকেতে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে বেতনের অঙ্কও। ২০০৮,২০০৯, ২০১০-এ সম সমপরিমান বেতন পেয়েছেন।

তবে ২০১১য় সিএসকেতে বেতন বেড়ে হয় ৮.৫ কোটি টাকা। ২০১৪ সালে ফার্স্ট চয়েস রিটেনশন ক্রিকেটারের ক্ষেত্রে ন্যূনতম বেতন স্থির করে ১২.৫ কোটি টাকা। সিএসকেতে ২০১৪, ২০১৫ সালে এবং রাইজিং পুনে সুপারজায়ান্টস-এ পরের দুই মরশুম এই পরিমাণ বেতন পেয়েছেন।২০১৮ সালে ফার্স্ট চয়েস রিটেনশন ক্রিকেটারের ক্ষেত্রে ন্যূনতম বেতন বেড়ে হয় ১৫ কোটি টাকা। সেই হিসাবে শেষ তিন মরশুম ৪৫ কোটি টাকা পেয়েছেন মাহি। আর আসন্ন এপ্রিলে পাবেন আরো ১৫ কোটি বেতন। সবমিলিয়ে ১৫০ কোটির সীমানা পেরিয়ে যাবেন তিনি।

প্রসঙ্গত, ধোনি আইপিএলে খেলে বেতন থেকে উপার্জন করেছেন ১৩৭ কোটি টাকারও বেশি। শুধু বেতন বাবদ পেয়েছেন এই অর্থ। প্রাইজ মানি, ম্যাচ সেরার পুরস্কার, ক্যাশ প্রাইজ বাদেই এই অর্থ পেয়েছেন। বেতনের ১৩৭ কোটির সঙ্গে পুরো অর্থ যোগ করলে সেই অঙ্ক ২০০ কোটিও পেরিয়ে যাবে। সেই হিসাবে আইপিএলের ইতিহাসে তিনিই সবথেকে বেশি দামি ক্রিকেটার।

সব মরশুম মিলিয়ে ধোনি শীর্ষে। আবার বিরাটের থেকে এগিয়ে রোহিত শর্মা। এতদিন আইপিএলে প্রতিনিধিত্ব করে রোহিত শর্মার উপার্জন ১৩১ কোটি টাকা। রোহিতের ক্ষেত্রে এই অঙ্ক ১২৬ কোটি। প্রসঙ্গত, প্রথম সিজনে বিরাট কোহলি আনক্যাপড প্লেয়ার হিসাবে আরসিবিতে যোগ দেন মাত্র ১২ লাখ টাকায়। পরের দুই মরশুমেও এই বেতন পেয়েছেন। তারপরে আন্তর্জাতিক স্তরে পরিচিত হওয়ার পর আর ফিরে তাকাতে হয়নি তাঁকে।

উল্লেখ্য, এলিট লিস্টে নাম লেখাতে চলেছেন এবি ডিভিলিয়ার্স এবং সুরেশ রায়নাও। দুজনেই আসন্ন আইপিএলে অংশ নিলে বেতনের উপার্জনে ১০০ কোটির গন্ডি পেরিয়ে যাবেন।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Ms dhoni to be first ever cricketer to earn 150 chore from ipl salary ahead of rohit and virat kohli

Next Story
অবিশ্বাস্য! মাঝমাঠ থেকে ডিরেক্ট থ্রোয়ে রান আউট জাদেজার, স্মিথ চমকে গেলেন
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com