বড় খবর

লর্ডসের সেঞ্চুরিতে অভিষেক! বিরাটদের হারের পরেই সৌরভের গলায় নিজের ঐতিহাসিক কীর্তি

স্টার স্পোর্টস-এ সৌরভ বলছিলেন, আমরা যখন ক্রিকেট খেলা শুরু করেছিলাম, তখন টেস্টই ছিল সর্বোচ্চ ফরম্যাট।

সৌরভ ফিরে দেখলেন নিজের কীর্তিকে (টুইটার)

টেস্ট ক্রিকেটের মেগাযুদ্ধ শেষ হওয়ার পরই এবার মুখ খুললেন স্বয়ং বিসিসিআই সভাপতি। জানিয়ে দিলেন, টেস্ট-ই ক্রিকেটের সর্বোত্তম ফরম্যাট।

স্টার স্পোর্টস-এ সৌরভ বলছিলেন, “আমরা যখন ক্রিকেট খেলা শুরু করেছিলাম, তখন টেস্টই ছিল সর্বোচ্চ ফরম্যাট। আমার মনে হয়, এখনো টেস্ট ক্রিকেট নিজের জায়গা ধরে রেখেছে। যদি কেউ নিজের ক্রিকেট দক্ষতা প্রকাশ করতে চায়, তাহলে টেস্ট ক্রিকেটই সেই মঞ্চ, যেখানে নিজেকে চেনাতে হয়। টেস্টে যাঁরা রান করেন, ভালো খেলেন, তাঁদের মনে রাখা হয়। গত ৪০-৫০ বছরে যাঁরা ক্রিকেটে রথী মহারথী হয়েছেন, সবাই টেস্টেই পারফর্ম করেছেন।”

আরো পড়ুন: ভারত নয়, নিউজিল্যান্ডই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার যোগ্য! হারের পরেই বিস্ফোরক শাস্ত্রী

এরপরে লর্ডসে নিজের ঐতিহাসিক টেস্ট অভিষেক নিয়েও মুখ খুলেছেন মহারাজ। জানিয়েছেন, “সবার লর্ডসে ক্রিকেট অভিষেক ঘটানোর ভাগ্য হয়না। আমার মনে আছে আমি যেদিন অভিষেক ঘটাই, সেদিন পয়েন্টে ফিল্ডিং করছিলাম। আর গোটা স্টেডিয়াম ভরা ছিল কানায় কানায়। সেই কারণে লর্ডস বরাবরই আমার কাছে স্পেশ্যাল। অভিষেকের পর যতবার লর্ডসে গিয়েছি, সুখ স্মৃতি ভিড় করে এসেছে।”

নিজের টেস্ট অভিষেকেই শতরান করা মহাতারকা বলছিলেন, “প্রথম দিনে দীর্ঘ ঘর থেকে বেরোনোর সময় কিছুটা ভয়েই ছিলাম।।সৌভাগ্যক্রমে সেদিন আমরা ফিল্ডিং করি। নাহলে ব্যাটসম্যান হিসাবে আমাকে তিন নম্বরে নামতে হত। তারপর শনিবার ব্যাট হাতে সেঞ্চুরি করি। সেইদিন সম্ভবত টেস্টের সেরা দিন ছিল। কারণ স্টেডিয়াম পুরো ভরা ছিল।”

আরো পড়ুন: সৌরভকে নিয়ে প্রবল দড়ি টানাটানি দুই চ্যানেলের! ঐতিহাসিক লর্ডস সেঞ্চুরির দিনেই বড় খবর

সৌরভ নিজের স্মৃতি চারণায় বলে যান, “সবাই বলে, ব্যাটসম্যানদের ঠিক পিছনের স্ট্যান্ডটাই সেরা। কারণ প্রতিবার শট খেলার পর ওখান থেকেই সবথেকে বেশি সমর্থন পাওয়া যায়। তারপর টি ব্রেকের পর ১০০ বরাবর আমার কাছে স্পেশ্যাল। চা পানের বিরতিতে আমি যখন একশো করে ফেলেছিলাম, সেই সময় ভীষণ ক্লান্ত লাগছিল। আসলে এই ক্লান্তি যতটা শরীরিক তার থেকেও বেশি মানসিক- সেই উন্মাদনা, আবেগ, আনন্দ- সব মিলে মিশে আমাকে ক্লান্ত করে দিচ্ছিল।”

সেই সময়ের প্রতিটা মুহুর্ত এত বছর পর আজও মনে করতে পারেন তিনি, “বলের বাউন্স এবং ব্যাটের উপরে দিকে হিট করার পরে গ্রিপ নরম হয়ে যাচ্ছিল। সেই কারণে টেপ লাগিয়ে খেলেছিলাম। মনে আছে, শচীন আমাকে এসে বলে, রিল্যাক্স থাকো। চা পান কর! তারপর ড্রেসিংরুমে ফিরলাম, দেখলাম সবাই দাঁড়িয়ে আমার কীর্তির জন্য আমাকে অভিবাদন জানাচ্ছে।”

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Sports news here. You can also read all the Sports news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Sourav ganguly reminds his historic debut test century at lords

Next Story
ভারত নয়, নিউজিল্যান্ডই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার যোগ্য! হারের পরেই বিস্ফোরক শাস্ত্রী
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com