বড় খবর

ওয়ানডে নেতৃত্বও হারাচ্ছেন কোহলি! বিশ্বকাপের ব্যর্থতায় বড়সড় সিদ্ধান্তের পথে সৌরভরা

জাতীয় টি২০ দলের নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা করেছেন কোহলি। তবে ওয়ানডে নেতৃত্ব থেকেও সরিয়ে দেওয়া হতে পারে কোহলিকে।

টি২০-র নেতৃত্ব আগেই ছেড়েছিলেন। তবে সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে বোর্ডের তরফে ওয়ানডে নেতৃত্ব থেকেও সরানো হতে পারে কোহলিকে। বিশ্বকাপের পরেই সরকারিভাবে এই পালাবদল ঘোষণা করে দেবে বোর্ড। ওয়ার্ল্ড কাপের পরে চলতি নভেম্বরেই ভারত নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে তিনটে টি২০ খেলবে। সেই সিরিজে রোহিত শর্মাই নেতা হচ্ছেন।

বিশ্বকাপের মধ্যেই জাতীয় নির্বাচকদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন বোর্ডের কর্তারা। সেখানেই বিরাট কোহলির নেতৃত্বের ভবিষ্যৎ নিয়ে জোরালো আলোচনা হবে। সেই আলোচনায় কোহলিকে ওয়ানডে ক্যাপ্টেন হিসাবে সরিয়ে দেওয়ার বিষয়ে চূড়ান্ত হবে।

আরও পড়ুন: অবসর ভাঙছেন যুবরাজ! বিধ্বস্ত ভারতের কঠিন সময়ে বিশাল আপডেট তারকার

কোহলির নেতৃত্বের সবথেকে বড় অভিযোগ, দীর্ঘদিন সময় পেয়েও দলকে কোনও আইসিসি টুর্নামেন্ট জেতাতে পারেননি। দ্বিপাক্ষিক সিরিজে ভারত সফল হলেও আইসিসি টুর্নামেন্টের ট্রফি খরা কোহলির নেতৃত্বের সবথেকে বড় মাইনাস পয়েন্ট। টি২০ ওয়ার্ল্ড কাপে আসরের মধ্যে বোর্ড সচিব জয় শাহ এবং সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় ভার্চুয়াল মিটিং করবেন জাতীয় নির্বাচকদের সঙ্গে। সেখানেই এই বিষয় গুলি আলোচনা করা হবে।

চলতি বছরে ভারতের কোনও ওয়ানডে সিরিজ নেই। আগামী বছরেও ভারতের হাতে গোনা কয়েকটি ওয়ানডে ম্যাচ রয়েছে। তাছাড়া ভারতকে আরও একটি টি২০ ওয়ার্ল্ড কাপ খেলতে হবে অস্ট্রেলিয়ায়।

আরও পড়ুন: সিএসকের কোটি কোটি টাকা বাঁচাতে চাইছেন ধোনি! প্রকাশ্যে জানালেন শ্রীনিবাসন

ওয়ার্ল্ড কাপের পরে রোহিত শর্মা নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে টি২০ সিরিজ না খেলে বিশ্রামে যেতে পারেন। এমন সম্ভবনা রয়েছে। এই বিষয়ে বোর্ডের এক কর্তা সংবাদসংস্থাকে বলে দিয়েছেন, “প্রথমত, নিউজিল্যান্ড সিরিজের দল গঠন হোক আগে। রোহিত এখনও দলকে বিশ্রাম নেওয়ার কথা জানাননি। তাছাড়া ও এখন বিশ্রাম নেওয়ার কথা ভাববেই বা কেন? ক্যাপ্টেন হিসাবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেই প্ৰথমবার নামবে ও।”

তবে ক্রিকেট মহলের আবার জোর আলোচনা নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে কানপুর (২৫-২৯ নভেম্বর) এবং মুম্বই (৩-৭ ডিসেম্বর) টেস্ট থেকে সরে দাঁড়াতে পারেন তিনি। জানা যাচ্ছে, টি২০ সিরিজে যাদের বিশ্রাম দেওয়া হবে, তাঁদের টেস্টে নামানো হতে পারে। আবার যাঁরা টি২০ সিরিজে খেলবেন তাঁদের ব্রেক দেওয়া হবে দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের ঠিক আগে। ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ শুরু হচ্ছে ডিসেম্বরের শেষের দিকে।

আসন্ন হোম সিজনে ভারতকে মাত্র তিনটে ওয়ানডে ম্যাচ খেলতে হবে। তা-ও আবার সেই ফেব্রুয়ারিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে। সূত্রের খবর, ২০২৩ ওয়ানডে বিশ্বকাপের আগে বোর্ড দু-বছরের মাস্টার প্ল্যান বানিয়ে এগোতে চাইছে। এখনই ওয়ানডে নেতৃত্ব ঘোষণার ক্ষেত্রে কোনও তাড়াহুড়ো না থাকলেও সীমিত ওভারের ক্রিকেটে নেতৃত্ব ভাগাভাগি হোক তা চাইছে না বোর্ড। আগামী বছরের জুনের শেষ পর্যন্ত ভারত ১৭টা টি২০ ম্যাচ খেলবে।

ঘটনা হল, দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজের আগেই কোহলি স্বেচ্ছায় একদিনের ক্রিকেটে নেতৃত্ব ছেড়ে দেন নাকি বোর্ডের ঘোষণার অপেক্ষায় থাকেন, সেটাই দেখার। কোহলি নিজেও বুঝে গিয়েছেন, ওয়ানডে নেতৃত্বে তাঁর দিন ঘনিয়ে এসেছে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Sports news here. You can also read all the Sports news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Virat kohli likely to be stripped off odi captaincy after t20 wc bcci reports

Next Story
নিজের শহরেই মোমের মূর্তি হয়ে যাচ্ছেন কোহলি
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com