বড় খবর

অবিলম্বে WhatsApp-Facebook নিষিদ্ধ করার ডাক দিলেন ব্যবসায়ীরা

রবিবার কেন্দ্রীয় তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদকে চিঠি লিখেছেন তাঁরা।

গোটা বিশ্ব উত্তাল WhatsApp-এর প্রাইভেসি পলিসি নিয়ে। ব্যক্তিগত তথ্য সুরক্ষার খাতিরে ভারতে WhatsApp এবং Facebook নিষিদ্ধ করার ডাক দিল বণিক মহল। রবিবার কেন্দ্রীয় তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদকে চিঠি লিখে মেসেজিং অ্যাপ ও তার প্যারেন্টিং অ্যাপ নিষিদ্ধ করার আবেদন জানিয়েছেন কনফেডারেশন অফ অল ইন্ডিয়া ট্রেডার্স বা CAIT।

বণিক সভা জানিয়েছে, নয়া প্রাইভেসি পলিসির কারণে সবরকম ব্যক্তিগত তথ্য, পেমেন্ট লেনদেন, কন্ট্যাক্টস, লোকেশন এবং গুরুত্বপূর্ণ তথ্য WhatsApp এবং এই মেসেজিং অ্যাপের মাধ্যমে Facebook ব্যবহার করতে পারবে। অরপর কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর কাছে বণিক সভা দাবি জানিয়েছে, কেন্দ্র অবিলম্বে যেন WhatsApp-কে প্রাইভেসি পলিসি কার্যকর করতে না দেয়।

আরও পড়ুন ইমেলের মাধ্যমে ভ্যাকসিন রেজিস্ট্রেশন? সতর্ক করছে সরকার

বণিক সভা আরও জানিয়েছে, ভারতে ২০ কোটির বেশি মানুষ WhatsApp ব্যবহার করেন। এভাবে কারও ব্যক্তিগত তথ্য ব্যবহারের বাধা না থাকলে সুরক্ষা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। এটা অর্থনীতি তো বটেই, দেশের অভ্যন্তরীণ সুরক্ষার ক্ষেত্রেও বিপজ্জনক। সংবাদসংস্থা পিটিআইকে WhatsApp-এর মুখপাত্র জানিয়েছেন, স্বচ্ছতা বজায় রাখতে প্রাইভেসি পলিসি আপডেট করা হয়েছে। ব্যবসার ক্ষেত্রে ফেসবুক থেকে সহায়তা নেওয়া যেতে পারে। গ্রাহকদের সঙ্গে যোগাযোগ আরও সহজ হবে এবার।

কিন্তু এর ফলে মোটেই WhatsApp-এর তথ্য আদানপ্রদানের নীতির কোনও পরিবর্তন হবে না। ব্যক্তি বা বন্ধুবর্গের সঙ্গে মেসেজিংয়ের ক্ষেত্রে চ্যাট গোপনই থাকবে। এই বিষয়ে Facebook-এর কাছেও বিশদে জানতে চাওয়া হয়েছে, কিন্তু কোনও উত্তর পাওয়া যায়নি।

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Technology news here. You can also read all the Technology news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Cait asks government to ban whatsapp facebook over new privacy policy

Next Story
ইমেলের মাধ্যমে ভ্যাকসিন রেজিস্ট্রেশন? সতর্ক করছে সরকার
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com