scorecardresearch

বড় খবর

ডিজিটাল ইন্ডিয়াতে পথের কাঁটা অশিক্ষার হার

Digital India: বহু মানুষ ডিজিটাল স্রোতে গা ভাসালেও সেই প্রযুক্তিকে নিজেদের কাজে ব্যবহার করতে পারেন না। কয়েকদিন আগে অবধিও অনলাইন শপিংএ আপত্তি ছিল বহু মানুষের।

pm modi, narendra modi
ভারতের বাণিজ্যমহল জানিয়েছেন ডিজিটালি ব্যবসা করাতে বিকাশ ঘটেছে ব্যবসায়। ফাইল চিত্র, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

আদৌ কি ডিজিটাল সূর্য উদয় হবে ভারতে?

চার বছর আগে কেন্দ্রীয় সরকারের গদি বদলের পর, ভারত জুড়ে একটাই মন্ত্র, ডিজিটাল ভারত গড়তে চান মোদী সরকার। এখন অবধি ভারতের এ বিষয়ে কতটা সিদ্ধিলাভ হয়েছে তা বলা যাচ্ছে না। তাহলে কি ২০১৯ লোকসভা ভোটের আগেই ছবিটা পুরোপুরি বদলে গিয়ে সম্পূর্ণ ডিজিটাল খেতাব পাবে দেশ? এই প্রশ্ন দানা বেঁধেছে ইতিমধ্যে।

বাণিজ্যমহল জানিয়েছে, ডিজিটালি ব্যবসা করাতে বিকাশ ঘটেছে ব্যবসায়, তবে অনেক ব্যবসায়ী এই প্রকল্পের কারণে মুখ থুবড়েও পড়েছেন। গত মঙ্গলবার IANS-এ প্রকাশিত একটি রিপোর্ট অনুযায়ী মাসে বহুবার ডিজিটাল পরিষেবা এবং অ্যাপলিকেশনে ব্যাঘাত ঘটে থাকে। বন্ধ হয়ে যায় সমস্ত কাজকর্ম।

ডিজিটাল নেটওয়ার্কিং সমস্যার সমাধান দিয়ে থাকে Riverbed Technology কোম্পানি। তাদের প্রকাশিত রিপোর্ট অনুযায়ী, মূলত নেটওয়ার্কিং সমস্যার কারণেই পিছিয়ে পড়ছেন বহু ব্যবসায়ী। এই কোম্পানির তৈরি করা ২০১৮-র একটি গ্লোবাল সমীক্ষা থেকে জানা যায়, এই মুহূর্তে প্রায় ৯০ শতাংশ ভারতীয় ব্যবসায়ী ডিজিটাল উদ্যোগকে স্বাগত জানালেও, তিন বছর আগে ছবিটা ছিল অন্যরকম।

আরও পড়ুন : গোঁড়া গ্রাহকের মর্জি মেনে সমালোচনার মুখে ভারতী এয়ারটেল

IANS কে দেওয়া দেওয়া সাক্ষাৎকারে Riverbed Technology-র এক কর্তা জানান, ডিজিটাল কার্যব্যবস্থা এবং তা দিয়ে কাজ করার মধ্যে রয়েছে বিস্তর ফারাক। বহু মানুষ ডিজিটাল স্রোতে গা ভাসালেও সেই প্রযুক্তিকে নিজেদের কাজে ব্যবহার করতে পারেন না। কয়েকদিন আগে অবধিও অনলাইন শপিংএ আপত্তি ছিল বহু মানুষের। নতুন প্রজন্মকে বেশি আকৃষ্ট করলেও, জেন এক্স ঘোর বিরধি ছিল এর। অর্থাৎ ডিজিটাল মাধ্যম নিয়ে প্রশিক্ষন বা জ্ঞানের অভাব রয়েছে বহু মানুষের।

৯৭ শতাংশ ভারতীয় ব্যবসায়ী জানান, ডিজিটালি সব কাজকর্ম করতে শুরুর দিকে কালঘাম ছুটেছিল তাঁদের। সঠিক শিক্ষা বা প্রশিক্ষন নেই আমজনতার।পাশাপাশি ৫১ শতাংশ বেড়ে গেছে বাজেটের ভার। এখনও প্রায় ৪১ শতাংশ মানুষ ডিজিটাল ব্যবস্থাকে মেনে নেন নি, প্রধানত জালিয়াতির ভয়ে।

আরও পড়ুন: এটিএমে ইঁদুর! খেয়ে নিল ১২ লক্ষ টাকা!

তবে গত তিন বছরে ডিজিটালের গ্রাফ উর্ধমুখী। তাই Riverbed Technology-র কর্তা সাক্ষাৎকারে পরামর্শ দেন, “যাঁরা ডিজিটাল পদ্ধতিকে আলিঙ্গন করতে দ্বিধাবোধ করেন, তারা খুব শীঘ্রই এই পথে হাঁটবেন এবং চাক্ষুষ তার ফলাফলও দেখতে পাবেন।” তিনি আরও জানান, ভারতের ব্যবসায়িক পরিকাঠামো ডিজিটাল হয়ে উঠলে দামি হয়ে উঠবে প্রত্যেকটি মিনিট। ডিজিটাল পরিষেবা ব্যর্থ হলে তার প্রভাব পড়বে ব্যবসায়। তাই কী বিপত্তি ঘটতে পারে, এবং তা যেন বারবার না ঘটে, সেদিকে কড়া নজর রাখতে হবে। ভারতের ৯০ শতাংশ ব্যবসায়ী মনে করে সম্প্রতি আইটির পরিকাঠামো উন্নত হয়েছে, এবং ডিজিটাল ভারত তৈরিতে তার ভূমিকা অনস্বীকার্য। কিন্তু এই তৃতীয় বিশ্বের দেশে তথ্য প্রযুক্তি বাইরে আরও একটি পরিসর রয়েছে। যেখানে এই উন্নয়েনের আলো এখনো পৌঁছতে পারে নি।

Riverbed Technology-র দাবি, ভারত ডিজিটাল হয়ে উঠলে লাভের মুখ দেখবেন ব্যবসায়ীরা। কিন্তু তার জন্য প্রয়োজন সঠিক প্রশিক্ষন এবং ধারনার। ডিজিটাল ব্যবস্থাকে কতটা রপ্ত করতে পারবে ভারতবাসী তা নিয়েও সন্দেহ আছে। ডিজিটাল ব্যবস্থায় ডুব দিতে হলে প্রয়োজন অর্থের ও ন্যূনতম শিক্ষার। ইউনেস্কোর প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী ভারতে আজও ৩৭ শতাংশ প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ নিরক্ষর। তাহলে কেমন করে ভারত হয়ে উঠবে ডিজিটাল তা বলবে ভবিষ্যৎ।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Technology news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Digital services failures widespread india modi govt