বড় খবর

লাদাখকে চিনের অংশ হিসাবে দেখানোয় সংসদীয় কমিটির প্রশ্নের মুখে Twitter

ভারতীয় মানচিত্র বিকৃত করার অভিযোগ ওঠে টুইটারের বিরুদ্ধে। ভারতের সার্বভৌমত্ব এবং অখণ্ডতায় আঘাত করা একেবারেই নাপসন্দ বলে জানিয়ে দেয় মোদী সরকার।

লাদাখকে চিনের অংশ হিসাবে দেখানোয় যৌথ সংসদীয় কমিটির প্রশ্নবাণে জর্জরিত টুইটার। বুধবার মাইক্রোব্লগিং সাইট কর্তৃপক্ষ যৌথ সংসদীয় কমিটির তলবে প্রশ্নোত্তর পর্বে মুখোমুখি হয়। তথ্য সুরক্ষা বিলের অধীনে টুইটার কর্তৃপক্ষকে জেরা করে কমিটি। লাদাখকে চিনের মানচিত্রের অংশ হিসাবে দেখানোর অপরাধে টুইটারের কাছে কৈফিয়ত চেয়েছে সংসদীয় কমিটি। লিখিত আকারে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে মার্কিন তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাকে।

গত ২২ অক্টোবর কেন্দ্রীয় সরকার টুইটারের সিইও জ্যাক ডোর্সিকে চিঠি লিখে অসন্তোষ প্রকাশ করে। ভারতীয় মানচিত্র বিকৃত করার অভিযোগ ওঠে টুইটারের বিরুদ্ধে। ভারতের সার্বভৌমত্ব এবং অখণ্ডতায় আঘাত করা একেবারেই নাপসন্দ বলে জানিয়ে দেয় মোদী সরকার। সংসদীয় কমিটির প্রধান বিজেপি সাংসদ মীনাক্ষী লেখি টুইটার কর্তৃপক্ষের কাছে লিখিত ব্যাখ্যা দাবি করেছেন। সংবাদসংস্থা পিটিআইকে তিনি বলেছেন, “লাদাখকে চিনের অংশ হিসাবে দেখানোয় ভারতের সার্বভৌমত্বের বিরুদ্ধে। এই গুরুতর অপরাধে ৭ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড হওয়া উচিত।”

আরও পড়ুন ভারতের মানচিত্রের ভুল উপস্থাপন! টুইটারকে সতর্ক করল কেন্দ্র

কেন্দ্রীয় তথ্যপ্রযুক্তি সচিব অজয় সাহানি টুইটার কর্তৃপক্ষকে সতর্ক করে চিঠি লিখে জানান, এমন অপচেষ্টা এই সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মের বিশ্বাসযোগ্যতা এবং নিরপেক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন তুলছে। তিনি চিঠিতে টুইটার কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছেন, ভারতীয় নাগরিকদের আবেগকে সম্মান দিন। এছাড়াও তিনি স্পষ্ট করে দিয়েছেন, ভারতের সার্বভৌমত্ব ও অখণ্ডতাকে অসম্মান করার কোনওরকম চেষ্টা বেআইনি এবং গ্রহণযোগ্য নয়। তা সে মানচিত্রেই প্রতিফলিত হোক না কেন।

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Jpc questions twitter for showing ladakh as part of china

Next Story
বরফের মধ্যেই আটকে রয়েছে জল, চাঁদের মাটিতে ‘নয়া আবিষ্কার’
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com