বড় খবর

পৃথিবীর অষ্টম উচ্চতম শৃঙ্গ ছুঁলেন চন্দননগরের পিয়ালি বসাক

নেপালের স্থানীয় শেরপাদের বয়ান অনুযায়ী পিয়ালিই প্রথম অসামরিক ভারতীয় মহিলা, যিনি ৮১৬৩ মিটার উচ্চতার মানাসলু-র চুড়োয় পা রাখলেন। চলতি বছরে এ পার বাংলার এটিই প্রথম ৮ হাজার মিটারের বেশি উচ্চতার সফল পর্বতাভিযান

পিয়ালি বসাক। (ছবি সুত্রঃ ফেসবুক)

বৃহস্পতিবার, ২৭ অক্টোবর স্থানীয় সময় সকাল সাতটায় পৃথিবীর অষ্টম উচ্চতম শৃঙ্গ জয় করলেন চন্দননগরের মেয়ে পিয়ালি বসাক। মধ্য-পশ্চিম নেপালের মানাসলু শৃঙ্গ। পিয়ালি এবং তাঁর শেরপা আপাতত সামিট সেরে ফিরেছেন মানাসলু বেস ক্যাম্পে। অভিযানের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বেরিয়েছিলেন চলতি মাসের পয়লা তারিখ।

  • নেপালের স্থানীয় শেরপাদের বয়ান অনুযায়ী পিয়ালিই প্রথম অসামরিক ভারতীয় মহিলা, যিনি ৮১৬৩ মিটার উচ্চতার মানাসলু-র চুড়োয় পা রাখলেন। চলতি বছরে এ পার বাংলার এটিই প্রথম ৮ হাজার মিটারের বেশি উচ্চতার সফল পর্বতাভিযান।

পাহাড়ে চড়ার শখ সেই ছোট থেকে। একটু একটু করে স্বপ্ন দেখা শুরু। হিমালয়ান মাউন্টেনিয়ারিং ইনস্টিটিউট থেকে ২০০৮ সালে পর্বতারোহণে বেসিক কোর্স। তারপর ২০১০ এ অ্যাডভান্স কোর্স করা। ত্রিশ বছরের পিয়ালির অভিজ্ঞতার ঝুলিতে রয়েছে মুলকিলা-১০, মাউন্ট তিঞ্চেংকাং এর মতো শৃঙ্গ আরোহণ। রাজ্য সরকারের ডব্লিউবিএমএএসএফ -এর পক্ষ থেকে মহিলাদের দল নিয়ে আয়জিত অভিযানেরও অংশ ছিলেন পিয়ালি। ২০১১ সালে ক্লাউড বার্স্টের জন্য সফল হয়নি ভাগীরথী-২ অভিযান।

আরও পড়ুন, দু’চাকায় চড়ে দাপিয়ে বেড়ালেন ইউরোপ, এবার ঘরে ফেরার পালা লিপিকা বিশ্বাসের

শেষ ৫ বছরে ৬০০০ মিটার উচ্চতার ৪টি শৃঙ্গে সফল অভিযান করলে রাজ্য সরকারের যুব কল্যাণ দফতর থেকে মেলে আর্থিক সাহায্য। এই শর্ত পূরণ করতে না পারায় পেশায় স্কুল শিক্ষক পিয়ালি বিশ্বাসকে নেপালের মানাসলু অভিযানের সমস্ত খরচ ধার করে, ঋণ নিয়ে জোগাড় করতে হয়েছে নিজেকেই। অষ্টম উচ্চতম শৃঙ্গ অভিযানে খরচ হয়েছে ১১ লক্ষ টাকার কাছাকাছি।

 

Web Title: Piyali basak from bengal summits worlds 8th highest manaslu peak

Next Story
পায়ে হেঁটে, ইচ্ছেমত নর্মদা (একাদশ চরণ)
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com