বড় খবর


‘আমার পার্টি শেষ!’, বৃদ্ধের নিজের লেখা শোকপ্রস্তাব ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরের কাগজের সেই শোকবার্তা ভাইরাল হতেই চোখে জল নেটিজেনদের।

মৃত্যুর আগে নিজেই নিজের শোকপ্রস্তাব খবরের কাগজে ছাপালেন এক বৃদ্ধ। সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরের কাগজের সেই শোকবার্তা ভাইরাল হতেই চোখে জল নেটিজেনদের। লিখলেন, “আমার পার্টি শেষ! আশা করব, যাঁদের ছেড়ে যাচ্ছি তাঁদের কারও মন ভারাক্রান্ত থাকবে না। সবার সময় শেষ হয়ে আসছে। ভাল থাকুন, জীবনকে উপভোগ করুন আর পার্টি চালিয়ে যান।” জন লেননকে উদ্ধৃত করে চেন্নাইয়ের বাসিন্দা এজ্জি কে উমামহেশের সেই শোকপ্রস্তাব রীতিমতো ভাইরাল।

৭২ বছরের উমামহেশ মারা যান গত ১৬ অক্টোবর। হার্ট সার্জারি জনিত সমস্যার কারণে তাঁর মৃত্যু হয়। মোটর ব়্যালি ড্রাইভার ইন্ডিয়ান গ্রাঁ প্রি-তে ডেপুটি সেক্রেটারি হিসাবেও কাজ করেছিলেন। চেন্নাইয়ের বাসিন্দা উমামহেশের জন্মদিন ছিল ১৭ অক্টোবর। কিন্তু তার আগেই নিজের পরিবারকে তিনি বলে যান, তাঁর মৃত্যুর পর যেন সেই শোকপ্রস্তাব খবরের কাগজে প্রকাশ করা হয়। মৃত্যুর আগে নিজের অঙ্গ ও দেহদান করে যান তিনি। গবেষণার কাজে যাতে তাঁর দেহ ব্যবহার করা হয়, সেই ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন উমামহেশ। নিজেকে পুরনো গাড়ির সঙ্গে তুলনা করতেন। যতদিন বেঁচে ছিলেন, জীবনকে ভরপুর ভাবে উপভোগ করেছিলেন। নিজের মতো করে পৃথিবীতে বাঁচা একজন ধর্মহীন মানুষ হিসাবে তুলে ধরেছেন উমামহেশ।

 

 

আরও পড়ুন আশার আলো দেখাল সদ্য়োজাত, জন্মের পরই খুদের কীর্তি দেখলে চমকে যাবেন

জন লেননের বক্তব্য উদ্ধৃত করে শোকবার্তায় লিখে যান, “আপনি অন্য পরিকল্পনা করতে ব্যস্ত থাকাকালীন আপনার সঙ্গে যা ঘটে সেটাই হল জীবন।” খবরের কাগজের পাশাপাশি নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টেও একটি হৃদয়বিদারক পোস্ট করেছিলেন উমামহেশ। লিখেছিলেন, “দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি, আমার পুরনো গাড়ি এবার তুলে রাখার সময় হয়েছে। ভারতের সেরা মেকানিকদের পরিশ্রম সত্ত্বেও সেই গাড়িকে বাঁচিয়ে রাখা গেল না। ইঞ্জিনের গ্যাস্কেট ফেটে গিয়েছে, পিস্টন শেষ, আর গাড়ির পুরনো যন্ত্রাংশও ভেঙে গিয়েছে। সৌভাগ্যবশত কিছু পার্টস ভাল রয়েছে, সেগুলি আরও একজন পুরনো গাড়ির মালিককে দান করে যাচ্ছি। আশা করি, নিজের যন্ত্রে সেগুলি ব্যবহার করবেন।”

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Chennai mans self written obituary is leaving netizens teary eyed

Next Story
আশার আলো দেখাল সদ্য়োজাত, জন্মের পরই খুদের কীর্তি দেখলে চমকে যাবেন
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com