scorecardresearch

বড় খবর

ভরা বর্ষায় ঘুম কাড়ছে বাজ, এক মাসে এই জেলায় বজ্রপাতে ১১ জনের মৃত্যু

গত বছরে বর্ষায় বজ্রপাতে পূর্ব বর্ধমান জেলায় ৪৯ জনের মৃত্যু হয়েছিল।

11 person were died due to lightning at east burdwan in last 32 days
প্রতিকী ছবি।

বর্ষার মরশুম শুরু হতেই বজ্রপাতে মৃতের সংখ্যা উত্তরোত্তর বেড়েই চলেছে পূর্ব বর্ধমানে। মঙ্গলবার একই দিনে জেলার মেমারি বিধানসভা এলাকায় বজ্রপাতে তিন জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতরা হলেন পদ হেমব্রম (৪৭), আশা সব্বার (৩৭) ও মালতী সব্বার (৩২)। মৃতদের মধ্যে পদ হেমব্রমের বাড়ি মেমারি ১ নং ব্লকের বড়ল গ্রামে। অপর দুই মৃত আশা ও মালতি মেমারি ২ নং ব্লকের বারোয়ারি গ্রামের বাসিন্দা।

পুলিশ ও পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে,মেমারির বড়ল গ্রাম নিবাসী পদ হেমব্রম এদিন দুপুরে বাড়ির কাছে থাকা পুকুরে স্নান করতে গিয়েছিলেন। তখনই হঠাৎ বজ্রপাত হলে পদ হেমব্রম লুটিয়ে পড়েন। স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে মেমারি গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক পদ হেমব্রমকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

আরও পড়ুন- বাংলায় করোনার বিরাট জাম্প! একধাক্কায় সংক্রমণ বাড়ল দ্বিগুণেরও বেশি

অন্যদিকে, মেমারির বারোয়ারি গ্রামের বাসিন্দা আশা সব্বার ও মালতী সব্বার এদিন বোহার এলাকায় ধান রোয়ার কাজে গিয়েছিলেন। ধান রোয়ার কাজ করার সময়েই মাঠে বজ্রপাতে জখম হয়ে তাঁরা মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। তাঁদেরও উদ্ধার করে দ্রুত নিয়ে যাওয়া হয় মেমারির পাহাড়হাটি ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা দুই মহিলাকেই মৃত বলে ঘোষণা করেন।

আরও পড়ুন- পার্থর টাক লক্ষ্য করে জুতো, মহিলাকে ‘মহিষাসুরমর্দিনী’-র সঙ্গে তুলনা বিজেপি নেতার

বিপর্যয় ব্যবস্থাপনা দফতরের জেলা আধিকারিক পিনাকি বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, গত বছর বর্ষার মরশুমে জেলায় বজ্রপাতে ৪৯ জনের মৃত্যু হয়েছিল। এবছর জুলাই মাসে বজ্রপাতে জেলায় ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। আর চলতি আগষ্ট মাস শুরুর দু’দিনের মধ্যে চার জনের বজ্রপাতে মৃত্যু হল। সোমবার মন্তেশ্বরের একজন বজ্রপাতে মারা গিয়েছেন । তারপর একদিন কাটতে না কাটতেই মঙ্গলবার মেমারির তিন জনের মৃত্যু হল বাজ পড়ে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: 11 person were died due to lightning at east burdwan in last 32 days