বড় খবর

রথ মামলায় সুপ্রিম কোর্টে বড় ধাক্কা বিজেপি-র

দ্রুত শুনানির আবেদন খারিজ করে দিল আদালত। ছুটির পর ২ জানুয়ারি আদালতের স্বাভাবিক কাজকর্ম পুনরায় শুরু হওয়ার পরই শুনানি হবে।

supreme court, সুপ্রিম কোর্ট
সুপ্রিম কোর্ট, ফাইল ছবি, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

রথ মামলায় বিজেপির দ্রুত শুনানির আবেদন খারিজ করে দিল সুপ্রিম কোর্ট। গণতন্ত্র বাঁচাও তথা রথযাত্রায় কলকাতা হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চের শর্তসাপেক্ষ অনুমতির উপর ডিভিশন বেঞ্চের স্থগিতাদেশের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিল বিজেপি। এই মামলাতেই দ্রুত শুনানি চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করেছিল বিজেপি। কিন্তু, মামলাটি খতিয়ে দেখে দ্রুত শুনানির আবেদন খারিজ করে দিয়েছে আদালত। ছুটির পর ২ জানুয়ারি আদালতের স্বাভাবিক কাজকর্ম পুনরায় শুরু হওয়ার পরই শুনানি হবে। শীর্ষ আদালতের রেজিস্ট্রির তরফে প্রাথমিকভাবে জানানো হয়েছিল, বিজেপির এই অবকাশকালীন আবেদন খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

কলকাতা হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চের রায়ের উপর ২১ ডিসেম্বর শুক্রবার স্থগিতাদেশ দিয়েছে ডিভিশন বেঞ্চ এবং মামলাটি ফের সিঙ্গল বেঞ্চেই বিচারের জন্য ফেরত পাঠানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার শর্তসাপেক্ষে বিজেপির এই কর্মসূচিতে অনুমতি দিয়েছিল বিচারপতি তপোব্রত চক্রবর্তীর সিঙ্গল বেঞ্চ। এদিন ডিভিশন বেঞ্চ বলে, রাজ্যের জমা করা গোয়েন্দা রিপোর্ট খুলে দেখা উচিত ছিল সিঙ্গল বেঞ্চের, কিন্তু সেখানে এই রিপোর্ট দেখাই হয়নি। এরপরই মূল মামলাটি ফেরত পাঠানো হয় সিঙ্গল বেঞ্চে।

আরও পড়ুন- পুলিশের উর্দি খোলার হুমকি দিলীপ ঘোষের

শুক্রবারের এই থগিতাদেশের পর বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, গণতন্ত্র বাঁচাও যাত্রার সূচি বদলাতে পারে। তাঁরা অন্যান্য কর্মসূচি গ্রহণ করতে পারেন বলেও জানিয়েছেন দিলীপ। এদিন পুলিশের হয়ে আদালতে সওয়াল করেছেন পশ্চিমবঙ্গ থেকে নির্বাচিত কংগ্রেসের রাজ্যসভার সাংসদ তথা বিশিষ্ট আইনজীবী অভিষেক মনু সিংভি। সিঙ্গল বেঞ্চ যে গোয়েন্দা রিপোর্ট খুলেই দেখেনি, সে বিষয়টি তিনিই উত্থাপন করেন। আর এই সওয়ালের পরই রাজ্যের অনুকুলে ঘুরতে থাকে মামলা।

আরও পড়ুন- রাজ্য বিজেপি শূন্য কলসী, বললেন পার্থ

প্রসঙ্গত, কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশে বিজেপি-র রথাযাত্রার বিষয়ে আলোচনা করতে ১৫ ডিসেম্বর লালবাজারে বৈঠকে বসে রাজ্য প্রশাসন ও বিজেপি-র প্রতিনিধি দল। এরপর আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি বিঘ্নিত হতে পারে বলে বিজেপির-র এই কর্মসূচিতে অনুমতি দেওয়া সম্ভব না বলে আদালতে জানিয়ে দেয় রাজ্য। এই মামলার শুনানির সময় রাজ্যের পক্ষে সওয়াল করতে উঠে অ্যাডভোকেট জেনারেল কিশোর দত্ত বলেন, গোয়েন্দা রিপোর্টে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতির আশঙ্কা করা হয়েছে এবং সে জন্যই অনুমতি দেওয়া সম্ভব না। কিন্তু, বিচারপতি তপোব্রত চক্রবর্তী রাজ্যের এই দাবি মানতে চাননি। তিনি বলেন, রাজ্য সরকার ‘যান্ত্রিকভাবে’ বিজেপির আবেদন খারিজ করে দিয়েছে। এরপরই তিনি রাজ্যের এই সিদ্ধান্ত খারিজ করে দিয়ে বিজেপির গণতন্ত্র বাঁচাও যাত্রা তথা রথযাত্রায় শর্তসাপেক্ষে অনুমতি দেন। রাজ্যকে বিজেপি-র এই কর্মসূচির জন্য পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা করতেও নির্দেশ দেন। অন্যদিকে, বিজেপি-কে বলা হয়, তাদের এই কর্মসূচিতে যাতে সাধারণ জনজীবন ক্ষতিগ্রস্থ না হয়, সে বিষয়ে নজর রাখতে হবে এবং কোনও গন্ডগোল হলে সেই দায় সমানভাবে বিজেপির উপরও বর্তাবে। পাশাপাশি, প্রতিটি জেলায় রথযাত্রা প্রবেশের ১২ ঘণ্টা আগে সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসনকে বিষয়টি সম্পর্কে অবহিত করার নির্দেশ দিয়েছিলেন বিচারপতি।

Get the latest Bengali news and Westbengal news here. You can also read all the Westbengal news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Bjp rath yatra in wb bjp moves to supreme court against calcutta high courts stay order

Next Story
মায়ের মৃতদেহ আগলে কত দিন? রবিনসন স্ট্রিটের ছায়া সল্ট লেকে
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com