ছোঁয়াচে রোগের কারণে শয়ে শয়ে পথকুকুরের মৃত্যু, উদ্বিগ্ন পুরপ্রশাসন: Canine Distamper disease causes hundreds of stray dog death in Kalna | Indian Express Bangla

ছোঁয়াচে রোগের কারণে শয়ে শয়ে পথকুকুরের মৃত্যু, উদ্বিগ্ন পুরপ্রশাসন

তিনশোর বেশি পথকুকুর মারা গিয়েছে গত একমাসের মধ্যে।

ছোঁয়াচে রোগের কারণে শয়ে শয়ে পথকুকুরের মৃত্যু, উদ্বিগ্ন পুরপ্রশাসন
কী কারণে এত পথকুকুরের মৃত্যু, তা নিয়ে নিশ্চিত হতে সোমবার তদন্তে নামেন জেলা প্রাণীসম্পদ বিকাশ দফতরের আধিকারিকরা। ছবি- প্রদীপ চট্টোপাধ্যায়

মারা যাচ্ছে শয়ে শয়ে পথকুকুর। তিনশোর বেশি পথকুকুর মারা গিয়েছে গত একমাসের মধ্যে। আর দিন পনেরোর মধ্যে মারা গিয়েছে প্রায় দেড় শতাধিক পথকুকুর। একেবারে মড়ক লাগার মত এই ভাবে পথকুকুরের মৃত্যু হতে থাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে পূর্ব বর্ধমানের কালনা পুরসভা এলাকায়। যা নিয়ে পুর প্রশাসনের উদ্বেগ বেড়েছে। কী কারণে এত পথকুকুরের মৃত্যু, তা নিয়ে নিশ্চিত হতে সোমবার তদন্তে নামেন জেলা প্রাণীসম্পদ বিকাশ দফতরের আধিকারিকরা। তাঁরা মৃত কুকুরে দেহ ময়নাতদন্তে পাঠানোর পাশাপাশি কুকুরের দেহের রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষায় পাঠান। প্রাণীসম্পদ বিকাশ দফতরের আধিকারিকদের প্রাথমিক অনুমান, ’কোনও ছোঁয়াচে রোগের কারণে কুকুরগুলির মৃত্যু হচ্ছে’।

প্রাণীসম্পদ বিকাশ দফতরের জেলার উপ-অধিকর্তা ডা সোমনাথ মাইতি এদিন বলেন, “আমাদের প্রাথমিক অনুমান ’ক্যানাইন ডিসটেম্পার’ নামের ’ছোঁয়াচে’ রোগের কারণে পথকুকুরদের মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে। এই রোগ এক কুকুর থেকে অন্য কুকুরের মধ্যে ছড়িয়ে পড়ে। বিষয়টি নিশ্চিত হতে পথকুকুরের রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষায় পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট আসলেই মৃত্যুর কারণ স্পষ্ট হয়ে যাবে।“ ইতিমধ্যে কত সংখ্যক পথকুকুর মারা গিয়েছে তা সার্ভে করে দেখা হচ্ছে বলে সোমনাথ মাইতি জানিয়েছেন।

কালনা পুরসভা কর্তৃপক্ষ ও কালনা শহরের বাসিন্দাদের কথায় জানা গিয়েছে,গত এক মাস হল কালনা শহরের বিভিন্ন ওয়ার্ডে একের পর এক পথকুকুরদের মৃত্যু হতে শুরু করে। দিনের পর দিন পথকুকুরের মৃত্যুর সংখ্যা বাড়তে থাকে। কালনা পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান তপন পোড়েল জানান, “গত একমাস ধরে পথকুকুরদের মৃত্যু হচ্ছে। গত পনেরো দিনের মধ্যে প্রায় দেড়শো কুকুরের মৃত্যু হয়েছে। গত একমাসে পথকুকুরের মৃত্যুর সংখ্যাটা ৩০০ ছাড়িয়ে যাবে “।

আরও পড়ুন রুক্ষ্ম পাহাড়ি পথে সঙ্গী সাধের পোষ্য, লাদাখ জার্নির রোমাঞ্চকর ভিডিও ভাইরাল

পথকুকুরদের এমন মৃত্যু কালনার পশুপ্রেমী মহলেও উদ্বেগ বাড়ায় ।তাঁরা বিষয়টি পুর কর্তৃপক্ষের নজরে আনেন। পুর কর্তৃপক্ষ মাধ্যমে সেই খবর পেয়ে এদিন কালনা শহর এলাকায় পথকুকুরদের দেখতে জেলা প্রাণীসম্পদ দফতরের ছয় সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল আসেন। তাঁদের সঙ্গে ছিলেন, পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান তপন পোড়েল ও ডেপুটি ম্যাজিস্ট্রেট বিধান বিশ্বাস-সহ অন্য আধিকারিকরা। পথকুকুরের মৃত্যুর কী কারণ, তা নিশ্চিত হতে চিকিৎসকরা কুকুরের দেহের রক্তের নমুনা সংগ্রহ করেন। অসুস্থ থাকা পথকুকুরদের চিকিৎসাও তাঁরা করেন। এছাড়াও মৃত কুকুরের দেহ ময়নাতদন্তেও পাঠান। কুকুরদের ভ্যাকসিন দেওয়ার ব্যাপারেও প্রাণী চিকিৎসকরা উদ্যোগী হন।

কালনা ১ ব্লক প্রাণীসম্পদ বিকাশ দবতরের আধিকারিক ডাঃ দেবব্রত তোলা বলেন, “এদিন ১৯টি পথকুকুরকে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। আলাদা একটা টিম তৈরি করা হয়েছে পথ কুকুরদের ভ্যাকসিন দেওয়ার জন্য। পাশাপাশি ৩টি কুকুরের চিকিৎসা করা হয়।” এছাড়াও একটি মৃথ পথকুকুরের দেহের ময়নাতদন্ত করার পাশাপাশি ওই কুকুরটির দেহের রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষায় পাঠানো হয়েছে বলে দেবব্রত বাবু জানিয়েছেন।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Canine distamper disease causes hundreds of stray dog death in kalna

Next Story
বাংলায় শীঘ্রই CAA কার্যকর হবে, শুভেন্দুর সুরেই ঘোষণা মোদীর মন্ত্রীর