scorecardresearch

বড় খবর
এক ফ্রেমে কেন্দ্রীয় কয়লামন্ত্রী ও কয়লা মাফিয়া, বিজেপিকে বিঁধলেন অভিষেক

সিবিআই তৎপরতা তুঙ্গে, আজই নোটিশ পেতে পারেন রাজীব কুমার

রাজ্যের আইপিএসদের মধ্যে অত্যন্ত ‘ধুরন্ধর’ হিসাবে পরিচিতি আছে খড়গপুর আইআইটি-র প্রাক্তনী রাজীব কুমারের। তাই আঁটঘাঁঠ বেঁধেই নামতে চায় সিবিআই।

সিবিআই তৎপরতা তুঙ্গে, আজই নোটিশ পেতে পারেন রাজীব কুমার
সিবিআই দফতরে চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি।

পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমারকে জিজ্ঞাসাবাদ ইস্যুতে সিবিআই দফতরে তৎপরতা তুঙ্গে। দুঁদে এই আইপিএস-কে কীভাবে প্রশ্নবাণে জর্জরিত করা যায়, চলছে সেই প্রস্তুতি। পুলিশের হাতে নিগৃহীত তিন সিবিআই আধিকারিকই দিল্লি থেকে কলকাতায় ফিরে এসেছেন। বুধবার রাতে ফিরেছেন জয়েন্ট ডিরেক্টর। সূত্রের খবর, বৃহস্পতিবারই জিজ্ঞাসাবাদের দিনক্ষণের নোটিস হাতে পেতে পারেন কলকাতার নগরপাল।

রাজীব কুমারের সরকারি বাংলোর সামনে ঘোরাঘুরির করার জন্য গত রবিবার সিবিআই তদন্তকারীদের প্রায় পাঁজাকোলা করে পুলিশের গাড়িতে তুলে শেক্সপিয়ার সরণি থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। এরপর আটক হতে হয়েছিল তাঁদের। পরে অবশ্য সিবিআই আধিকারিকদের ছেড়েও দেওয়া হয়েছে। ওই রাতে পুলিশ কমিশনারের আবাসস্থলে ছুটে যান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপর মোদী সরকারের কেন্দ্রীয় সংস্থাকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে ব্যবহারের প্রতিবাদে ‘দেশ বাঁচাতে’ সরাসরি ধর্মতলার মেট্রো চ্যানেলে ধর্নায় বসে পড়েন মুখ্যমন্ত্রী।

আরও পড়ুন: ‘রাজীব কাণ্ডে’ তোলপাড় সিবিআই, খবর ফাঁস করছে কে?

মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্ট জানিয়ে দেয়, জিজ্ঞাসাবাদ করা যাবে পুলিশ কমিশনারকে। দিল্লি বা কলকাতা নয়, তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হাজির হতে হবে মেঘালয়ের রাজধানী শিলং-এ। আদালতের রায়ের পর দিল্লিতে সিবিআইয়ের উচ্চপর্যায়ের বৈঠক হয়। একপরই দিল্লি থেকে কলকাতায় ফিরে এসে চিট ফান্ড কাণ্ডের তদন্তকারী আধিকারিকরা সিজিও কমপ্লেক্সে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে বসেন। সূত্রের খবর, সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেন, অন্যতম ডিরেক্টর দেবযানী মুখোপাধ্যায়, সারদার গ্রুপ মিডিয়া সিইও কুণাল ঘোষ-সহ অন্যান্যদের জিজ্ঞাসাবাদ করে যেসব বিষয়গুলি উঠে এসেছিল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

চিট ফান্ড কাণ্ডে গ্রেফতার হওয়ার পর অনেকেই সরব হয়েছিলেন রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে। রাজ্যের আইপিএসদের মধ্যে অত্যন্ত ‘ধুরন্ধর’ হিসাবে পরিচিতি আছে খড়গপুর আইআইটি-র প্রাক্তনী রাজীব কুমারের। তাই আঁটঘাঁঠ বেঁধেই নামতে চায় সিবিআই। তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য সিবিআই চূড়ান্ত পর্যায়ের প্রস্তুতি নিচ্ছে। রীতিমতো রুদ্ধদ্বার বৈঠকে প্রশ্নমালাও তৈরি করা হয়েছে। পুলিশ কমিশনারের জবাবের পাল্টা কী প্রশ্ন করা হবে, তাও ভেবে রেখেছেন তদন্তকারীরা। রাজীবের বিরুদ্ধে মূল অভিযোগ, সারদাকাণ্ডের তদন্ত করতে গিয়ে তিনি বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ নথি নষ্ট করেছেন বা লোপাট করে দিয়েছেন। এই নথির বিষয়েই মূলত জানতে চাইবে সিবিআই।

আরও পড়ুন: রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের

সূত্রের খবর, এর আগে চারবার জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সিবিআই নোটিস পাঠালেও, তদন্তকারিদের মুখোমুখি হননি কলকাতার পুলিশ কমিশনার। তবে এবার খোদ সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে জিজ্ঞাসাবাদ করার সুযোগ পেয়েছে সিবিআই। ফলে, এই সুযোগের পূর্ণ সদ্ব্যবহার করতে চায় কেন্দ্রীয় সংস্থাটি।

সূত্রের খবর, সিবিআই-এর প্রস্তুতি এখন মোটামুটি শেষের দিকে। তাই শিলং-এ জিজ্ঞাসাবাদের দিনক্ষণ নিয়ে আলোচনা চলছে এবং তা প্রায় নির্দিষ্টও হয়ে গিয়েছে। সম্ভবত আজ বৃহস্পতিবারই যে কোনও মাধ্যমে রাজীব কুমারের কাছে পৌঁছতে পারে সিবিআই-এর নোটিস।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Cbi notice likely to be sent to rajiv kumar today