scorecardresearch

বড় খবর

জোগান কমেই দাম চড়া, সাধের ইলিশ ছুঁতেই যেন হাত কাঁপে আম-বাঙালির

ভরা বর্ষাতেও পর্যাপ্ত পরিমাণে ইলিশের দেখা মেলেনি। সেই কারণেই আম বাঙালির রসনাতৃপ্তি থেকে দূরেই থাকছে সাধের ইলিশ।

জোগান কমেই দাম চড়া, সাধের ইলিশ ছুঁতেই যেন হাত কাঁপে আম-বাঙালির
ভরা বর্ষাতেও এবারও পর্যাপ্ত পরিমাণে ইলিশ ওঠেনি দক্ষিণ ২৪ পরগনার নদীগুলি থেকে।

আবহাওয়ার খামখেয়ালিপনার কোপ এবার সাধের ইলিশেও! ভরা বর্ষাতেও আর আগের মতো নদীতে পরম-তৃপ্তির রুপোলি শষ্যের জোয়ার আসে না। তাই আবদারে মন ডগমগ হলেও জোগান কমের জেরে চড়া দামে ইলিশ ছুঁতেই হাত কাঁপে আম বাঙালির। এবছরও এখনও পর্যন্ত দক্ষিণ ২৪ পরগনার নদীগুলি থেকে ৭ হাজার টন ইলিশ উঠেছে। দুর্গাপুজো পর্যন্ত এই ইলিশ ওঠার মরশুম রয়েছে।

ভোজন রসিক বাঙালির ইলিশ-প্রেম সর্বজনবিদিত। তবে গত কয়েক বছরে সেই আদি-অকৃত্রিম প্রেমেই যেন ভাঁটার টান। ভরা বর্ষাতেও পর্যাপ্ত পরিমাণে ইলিশের দেখা নেই। সেই কারণেই আম বাঙালির রসনাতৃপ্তি থেকে দূরেই থাকছে সাধের ইলিশ। গ্লোবাল ওয়ার্মিংয়ের কোপ বোধ হয় ইলিশেও।

দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলায় কাকদ্বীপ, নামখানা, রায়দিঘি, কুলতলি, ফ্রেজারগঞ্জ, বকখালি, ডায়মন্ড হারবারের নদীগুলি থেকে ইলিশ ওঠে। এবার এখনও পর্যন্ত এই নদীগুলি থেকে ৭ হাজার টন ইলিশ উঠেছে। দক্ষিণ ২৪ পরগনার মাছ বাজারগুলিতে ৮০০/১০০০/১২০০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে ইলিশ। কেজি প্রতি ৮০০-র নীচের দামের ইলিশ সাইজে বড়ই ছোট। স্বাদও তেমন মধুর নয়।

বাজারে চাহিদা বিপুল, কিন্তু সেই চাহিদা অনুযায়ী ইলিশের জোগান খুবই কম। তাই মাছের দাম কমছে না, এমনই জানাচ্ছেন মাছ ব্যবসায়ীরা। গোদের উপর বিষফোঁড়ার মতো এবার বর্ষায় বঙ্গে বরুণদেব ঝাঁপি খোলেনি। বর্ষার বৃষ্টির ব্যাপক ঘাটতি রয়ে গিয়েছে রাজ্যজুড়ে। প্রায় উধাও ইলশেগুড়ি বৃষ্টিও। সব মিলিয়ে তাই এবারও ইলিশে ভাঁটার টান।

আরও পড়ুন- আকাশ ছোঁয়ার স্বপ্ন রেজাউলের, ফাইভের গণ্ডি পেরনো যুবকই বানাচ্ছেন আস্ত হেলিকপ্টার

তবে গত বছরের তুলনায় নাকি এবার দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলায় ইলিশের জোগান বেড়েছে। এমনই জানাচ্ছেন ওয়েস্ট বেঙ্গল ইউনাইটেড ফিসারম্যান অ্যাসোসিয়েশনের জয়েন্ট সেক্রেটারি বিজন মাইতি। তিনি বলেন, ”ইলিশের পর্যাপ্ত জোগান না থাকায় মাছের দাম কমছে না। তবে গত বছরের তুলনায় এবার এখনও পর্যন্ত ইলিশের জোগান বেশি রয়েছে। তিন বছর ধরে নদী থেকে পর্যাপ্ত পরিমাণে ইলিশ উঠছে না। তার আগে এই সময় পর্যন্ত ১৫-১৬ হাজার টন ইলিশ উঠত। এবার এখনও পর্যন্ত মাত্র ৭ হাজার টন ইলিশ উঠেছে।”

এদিকে, ইলিশ নিয়ে এই হাপ-হিত্যেশের মাঝেই সুখবর ভোজনরসিক বাঙালির জন্য। রাজ্যে ঢুকেছে পদ্মার ইলিশ। এপার বাংলায় পুজোর ‘উপহার’ পাঠিয়েছে ওপার বাংলা। হাওড়ার মাছ বাজারে মঙ্গলবার থেকে ঢুকেছে টন-টন পদ্মার ইলিশ। গোটা সেপ্টেম্বর জুড়ে দফায়-দফায় প্রায় আড়াই হাজর মেট্রিক টন বাংলাদেশের ইলিশ ঢুকবে এরাজ্যে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Hilsa price is not reducing in the market due to insufficient quantity of fish