scorecardresearch

বড় খবর

অনলাইন সেমিনারের নিয়ম বদল নিয়ে মোদীকে কড়া চিঠি মমতার

কেন্দ্রীয় সরকারের শিক্ষামন্ত্রকের তরফে যে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে তা রাজ্যের সঙ্গে কোনও পরামর্শ ছাড়াই করা হয়েছে।

অনলাইন সেমিনারের নিয়ম বদল নিয়ে মোদীকে কড়া চিঠি মমতার

আন্তর্জাতিক সেমিনার বা সম্মেলন আয়োজনের আগে প্রতিষ্ঠানগুলিকে আগে থেকে কেন্দ্র/ রাজ্যের অনুমোদন নিয়ে তা আয়োজন করতে হবে, সম্প্রতি এমনই নিয়ম জারি করেছে কেন্দ্রীয় সরকারের শিক্ষা মন্ত্রক। এবার এই ‘নিয়মে’র বিরোধিতা করে শিক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

চিঠিতে তিনি সাফ লিখেছেন যে, কেন্দ্রীয় সরকারের শিক্ষামন্ত্রকের তরফে যে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে তা রাজ্যের সঙ্গে কোনও পরামর্শ ছাড়াই করা হয়েছে। তিনি রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্ষমতা রাজ্যের হাতেই থাকে। তাই এই কীভাবে সেখানেও এই নিয়ম লাগু করা হচ্ছে, তাও মুখ্যমন্ত্রীর তরফে জানতে চাওয়া হয়।

মমতার বক্তব্য, “আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলির নিজেদেরও কিছু ক্ষমতা এবং স্বাধীনতা রয়েছে। তাই তাঁরা কীভাবে বিদেশি ইউনিভার্সিটিগুলির সঙ্গে যোগাযোগ করবে সেই ক্ষমতা তাঁদেরই থাকার কথা। জ্ঞান কখনই নির্দিষ্ট দেশ কিংবা জাতি-ধর্মের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকতে পারে না।”

আরও পড়ুন, গলায় ব্যানার, মাথায় নীল হেলমেট! মুখ্যমন্ত্রীর ‘নতুন লুকে’ অবাক শহরবাসী

এরপরই মোদী সরকারকে কটাক্ষ করে মুখ্যমন্ত্রীর প্রশ্ন, “এই নীতির মাধ্যমে কি কেন্দ্রীয় সরকার এক দেশ, এক চিন্তাকে আরোপিত করছে দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলির উপর?” মমতা এও বলেন, “বর্তমানে ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মই শিক্ষা ব্যবস্থার ভিত হয়ে উঠেছে। বিশ্বের সঙ্গে যোগাযোগের অন্যতমও মাধ্যমও। দেশের সংবিধানে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানেরও জায়গা রয়েছে। তাই এই ধরণের নিয়ম আরোপের অর্থ হল গণতান্ত্রিক কাঠামোর উপর আঘাত হানা। অতএব এই নিয়ম প্রত্যাহারের আবেদন জানাচ্ছি।”

প্রসঙ্গত, কেন্দ্রের এই নয়া নির্দেশে একাডেমিক এবং বৈজ্ঞানিক মহল আপত্তি জানিয়েছিল। দেশের দুটি বৃহত্তম বিজ্ঞান গবেষণালয়ের তরফে সরকারকে চিঠিও দেওয়া হয়। সেখানে বলা হয়েছে যে এই নিয়ম কার্যকর হলে ‘সমস্ত বৈজ্ঞানিক আলোচনাকে তা থামিয়ে দেবে’।

তবে রবিবার বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের সচিব আশুতোষ শর্মা দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে বলেছেন যে এই আদেশটি “পুনর্বিবেচনা করা হচ্ছে”। তিনি বলেন, “কেন্দ্র কখনই চায় না বিজ্ঞানকে থমকে দিতে। বিজ্ঞান একাডেমি তাদের মতামত প্রকাশ করেছে। সরকার অবশ্যই তাদের উদ্বেগ নিরসন করতে চাইবে। চূড়ান্ত পরিণতি কী হবে তা আমি জানি না। তবে বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করা হচ্ছে।”

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Mamata banerjee wrote letter to pm modi over online seminer rule change