scorecardresearch

বড় খবর

‘লজ্জা লাগা উচিত’, হাইকোর্টের বিক্ষোভ নিয়ে মমতা-অভিষেককে দুষে শুভেন্দুর গলায় কেষ্টর সুর

হাইকোর্টের বিক্ষোভ নিয়ে তৃণমূলকে নিশানা শুভেন্দুর।

‘লজ্জা লাগা উচিত’, হাইকোর্টের বিক্ষোভ নিয়ে মমতা-অভিষেককে দুষে শুভেন্দুর গলায় কেষ্টর সুর
আবারও শুভেন্দুর নিশানায় মমতা-অভিষেক।

এবার কলকাতা হাইকোর্টের বিক্ষোভ নিয়েও মুখ্যমন্ত্রী ও তাঁর ভাইপো তথা সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিশানা করলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। কলকাতা হাইকোর্টের বিক্ষোভ নিয়ে ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছেন বিরোধী দলনেতা। কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রীকে উপযুক্ত ব্যবস্থা নিতেও আবেদন জানিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী।

কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি রাজাশেখর মান্থার এজলাসে তুমুল গন্ডগোল নিয়ে এবার রাজ্যের শাসকদলকেই নিশানা করলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও সর্বভারতীয় তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মদতেই হাইকোর্টে এই গন্ডোগোল হয়েছে বলে অভিযোগ নন্দীগ্রামের বিজেপি বিধায়কের।

আরও পড়ুন- হাইকোর্টের ঘটনায় ‘তিতিবিরক্ত’ রাজ্যপাল, বিচারপতিকে বিশেষ সুরক্ষা দিতে নির্দেশ

শুভেন্দু অধিকারী বলেন, ‘কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রীকে বলেছি আপনি কড়া ব্যবস্থা নিন। আমি আইনমন্ত্রীকে আবেদন করেছি কড়া ব্যবস্থা নিয়ে গুন্ডাদের ভিতরে ঢোকান। এই গুন্ডাদের পিছনে মমতা ব্যানার্জি ও তাঁর ভাইপো আছেন। লজ্জা লাগা উচিত মমতা ব্যানার্জির।’

উল্লেখ্য, নজিরবিহীন ঘটনার সাক্ষী থেকেছে কলকাতা হাইকোর্ট। সোমবার ঘটনার সূত্রপাত হয়। বিচারপতি রাজাশেখর মান্থার বাড়ির বাইরে ওই দিন তাঁর বিরুদ্ধে পোস্টার পড়েছিল। এরপর হাইকোর্টে তাঁর এজলাসেও চলে তুমুল বিক্ষোভ। বিচারপতি রাজাশেখর মান্থার এজলাস বয়কট করে বিক্ষোভ শুরু করেন আইনজীবীদের একাংশ।

অভিযোগ, তৃণমূলপন্থী আইনজীবীরাই এই বিক্ষোভের নেতৃত্বে ছিলেন। বিচারপতি রাজাশেখর মান্থার এজলাসের বিচার প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করা হবে না বলে গতকাল সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলে কলকাতা হাইকোর্টের বার অ্যাসোসিয়েশন। যদিও বারের ওই সিদ্ধান্তের যৌক্তিকতা নিয়ে আইনজীবীদের একাংশই প্রশ্ন তোলেন।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Suvendu adhikari criticize mamata and abhisek regarding highcourt chaos