বড় খবর


Angrezi Medium review: ফিরে এলেন ইরফান

আংরেজি মিডিয়াম দেখে বলাই যায়, ফিরে এলেন ইরফান। তাঁর চিকিৎসার কথা জেনেও, এই দুর্ধর্ষ অভিনেতার স্ক্রিন প্রেজেন্স অসামান্য। তাঁর চিকিৎসার চলাকালীন ছবিটা করেছিলেন তিনি।

Angrezi Medium
'আংরেজি মিডিয়াম' ছবিতে ইরফান খান ও রাধিকা মদন।

Angrezi Medium movie cast: ইরফান খান, রাধিকা মদন, দীপক দোবরিয়াল, করিনা কাপুর, ডিম্পল কপাডিয়া, রণবীর শোরে, পঙ্কজ শোরে, তিলোত্তমা সোম

Angrezi Medium movie director: হোমি আদজানিয়া

Angrezi Medium movie rating: ২.৫/৫

চম্পক বনসল, উদয়পুরের জনপ্রিয় মিষ্টির দোকানের মালিক, কিন্তু সে সারাজীবন ধন্ধের মধ্যে কাটিয়েছে। এটা না ওটা? এখন না পরে? কিন্তু মেয়ে তারিকার কথা আসলে সেখানে কোনও ধন্ধ ছিল না। যা মেয়ে চাইবে, সেটাই হবে।

তারু ব্রিটেন যেতে চায় উচ্চশিক্ষার জন্য, চম্পকের কাছে এখন সেটাই একমাত্র লক্ষ্য। হিন্দি মিডিয়ামের তিনবছর পর এসেছে আংরেজি মিডিয়াম। প্রোটেকটিভ বাবা চম্পক এবং কাকা গোপির সঙ্গে তারুর নতুন জগতে পা রাখে সেখানে বহু নতুন চরিত্রের মুখোমুখি হল সে: কারিনা কাপুর, একজন পুলিশ, ডিম্পল কপাডিয়া, প্রবীণ মহিলা যিনি ঘর ভাড়া দেন, রণবীর শোরে, একজন ভাল মনের প্রবঞ্চক, পঙ্কজ ত্রিপাঠী, একজন ট্র্যাভেল এজেন্ট যার ভুয়ো পাসপোর্ট তৈরির ব্যবসাও রয়েছে।

আরও পড়ুন, মহাশ্বেতা দেবীর লড়াইয়ের গল্প, বড়পর্দায় ‘মহানন্দা’

ছবির প্রধান সমস্যা হল একটি শ্রমসাধ্য প্লট, একই সঙ্গে অনেকগুলি জিনিস দেখানোর ফেলার চেষ্টার সবটা কেনম গুলিয়ে গিয়েছে। সৌভাগ্যক্রমে, বিরতির পরের অংশে খান-মদনকে পার করে অন্যরা কিছুটা দৃষ্টি আকর্ষণ করে। করিনা এবং ডিম্পল কপাডিয়া যখন নিজেদের শক্তিশালী প্রমাণ করতে শুরু করে, অপরিচিত নারী চরিত্র যারা প্রথমে চরিত্র, তাঁরা বিষয়টিকে যথাযথভাবে প্রমাণ করতে পেরেছে।

রাধিকা মাদানও সাবলীল অভিনয় করতে পারেননি। মর্দ কো দর্দ নেহি হোতা এবং পাটাকা ছবিতে তাঁর উপস্থিতি দর্শক পছন্দ করেছিল। রাধিকা মদনকে বিরক্তিকর লেগেছে। সত্যিকারের রাধিকার কী হয়েছে? আমার পুরনো অভিনেত্রীকে ফেরত চাই।

হাসি-কান্না, কমেডি -বিভিন্ন অনুভূতির মধ্যে সমতা বজায় রাখার চেষ্টা করেছে। ছবিটি একদিক থেকে অন্যদিকে চলতে শুরু করে, ফলস্বরূপ হঠাৎ টোনাল শিফট যা চোখে লাগে। কিন্তু দর্শকের জন্য ভাল, ইরফান এবং ডবরিয়ালের মধ্যে সময় ব্যয় করেছে এই ছবি। তারাই ছবিটা চালিয়েছে।

আরও পড়ুন, সেরা তিন কন্যা, প্রথম রাসমণি! রইল টিআরপি সেরা দশ তালিকা

আংরেজি মিডিয়াম দেখে বলাই যায়, ফিরে এলেন ইরফান। তাঁর চিকিৎসার কথা জেনেও, এই দুর্ধর্ষ অভিনেতার স্ক্রিন প্রেজেন্স অসামান্য। তাঁর চিকিৎসার চলাকালীন ছবিটা করেছিলেন তিনি। হিন্দি হোক বা আংরেজি, যে মিডিয়ামই হোক না কেন, ইরফানের বার্তা সোজাসুজি দর্শকমনে আসে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Angrezi medium movie review irrfan khan radhika madan

Next Story
মহাশ্বেতা দেবীর লড়াইয়ের গল্প, বড়পর্দায় ‘মহানন্দা’Mahananda
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com