বড় খবর

অন্ধকার হলেই ভূতের ভয়! সিরিজে অভিনয় করে ভয় বেড়ে গেল প্রিয়মের

Prriyam Chakraborty ghostphobia: বাড়ির গেটে তালা পড়ে না সূর্য ডোবার পরে! অভিনেত্রী প্রিয়ম চক্রবর্তী শোনালেন তাঁর ভয়ঙ্কর ভূতের ভয়ের গল্প। সম্প্রতি তা বেড়ে গিয়েছে ভূতের সিরিজে অভিনয়ের পরে।

Prriyam Chakraborty ghostphobia increases after acting in a horror series
প্রিয়ম চক্রবর্তী। ছবি: অভিনেত্রীর ফেসবুক পেজ থেকে

Prriyam Chakraborty’s ghostphobia: ভয় পেতে গেলে সব সময় ভূত দেখতে হয় না। বরং ভূতকে চোখে না দেখেই ভয় বেশি পায় মানুষ। সেই ভয়েতেই সুড়সুড়ি দিতে আসছে নতুন ওয়েব সিরিজ ‘অড-ভুতুড়ে’। সেই সিরিজের একটি গল্পে অভিনয় করেছেন প্রিয়ম চক্রবর্তী আর তার পর থেকেই ভূতের ভয়টা বেড়ে গিয়েছে তাঁর।

প্রিয়ম চক্রবর্তী টেলিভিশনের জনপ্রিয় অভিনেত্রী। এই মুহূর্তে সান বাংলা-র ধারাবাহিক ‘বেদের মেয়ে জ্যোৎস্না’-তে ‘তারা’ চরিত্রে অভিনয় করছেন। ভূতের ভয়ে যে প্রিয়ম অত্যন্ত কাতর, সেটা তাঁর ধারাবাহিকের ইউনিটের সকলেই জানেন। তাই কখনও সেটে লোডশেডিং হলে, জেনারেটর অন হওয়ার আগেই তাড়াতাড়ি টর্চ জ্বেলে ফেলেন সকলে। কারণ তা না হলে নিমেষেই শুনতে হবে ভয়ার্ত চিৎকার।

আরও পড়ুন: ৯ মাসে ৩ প্রিয়জনের মৃত্যু! ঘুমের ওষুধের নির্ভরতা কাটিয়ে কীভাবে উঠে দাঁড়ালেন অনিন্দিতা

”আমি প্রচণ্ড ভয় পাই ভূতে। আমি রাতে একা থাকতে পারি না। হইচই-এর সিরিজের গল্পটা খুব ভাল। আমার কাজ করে ভালও লেগেছে কিন্তু তার পর থেকে আরও ভয় বেড়ে গিয়েছে। কদিন আগে আমি ‘বেদের মেয়ে জ্যোৎস্না’-র মেকআপ রুমে বসে ছিলাম একা। হঠাৎ আলো নিভে গিয়েছে। আমি ভয়ে থরথর করে কাঁপতে শুরু করলাম। চিল চিৎকার শুনে সঙ্গে সঙ্গে ছুটে এসেছে সবাই’, বলেন প্রিয়ম, ”কী যে করব জানি না। আমার এই ভূতের ভয় কিছুতেই কাটে না।”

Prriyam Chakraborty ghostphobia increases after acting in a horror series
‘বেদের মেয়ে জ্যোৎস্না’ ধারাবাহিকে ‘তারা’ চরিত্রে। ছবি: অভিনেত্রীর ফেসবুক পেজ থেকে

প্রিয়ম চক্রব্রর্তী ও অভিনেতা শুভজিৎ করের সামাজিক বিয়েটুকুই শুধু বাকি। দুজনে সংসার করছেন প্রায় দুবছর হল। প্রিয়ম জানালেন যে সূর্য ডোবার পরে বাড়ির পিছন দিকের গেটে তালা দিতে যেতে পারেন না প্রিয়ম একা। কাউকে একটা সঙ্গে থাকতেই হবে, নাহলে গেট খোলাই থেকে যাবে।

আরও পড়ুন: পর্দায় আবার উজান-হিয়ার প্রেম! নতুন রূপে ‘এখানে আকাশ নীল’

”আমি রাতে একা ঘুমোতে পারি না। আমার সঙ্গে ঝগড়া হলে শুভ ইচ্ছে করে বলে আমি নৈহাটি চললাম। তখন আমাকে ফোন করে বলতে হয় প্লিজ তুমি এসো, আমি রাতে ঘুমোতে পারব না। কী আর বলব, আমি রাতে বাথরুমে গেলে, শুভকেও ঘুম থেকে উঠতে হয় আমার সঙ্গে”, হাসি ও ভয় মিশিয়ে একটু লজ্জা পেয়েই জানালেন প্রিয়ম।

সম্ভবত আগামী মাস থেকেই ‘অড-ভুতুড়ে’ সিরিজের স্ট্রিমিং শুরু হবে ‘হইচই’-তে। মোট ৭টি এপিসোড থাকছে এই ওয়েব সিরিজে। প্রথম পাঁচটি গল্প আলাদা আলাদা হলেও ষষ্ঠ ও সপ্তম এপিসোডে দেখা যাবে যে আগের পাঁচটি ঘটনাই পরস্পরের সঙ্গে সংযুক্ত। শেষ এপিসোডে থাকবে টান টান ক্লাইম্যাক্স। এই ষষ্ঠ ও সপ্তম এপিসোডেই রয়েছেন প্রিয়ম। ওই দুটি এপিসোডেই জানা যাবে আগের পাঁচটি গল্পের ভুতুড়ে কাণ্ডের পিছনের রহস্যটা কী? সত্যিই কি ভূত নাকি অন্য কিছু?

Prriyam Chakraborty ghostphobia increases after acting in a horror series
‘অড-ভুতুড়ে’ সিরিজের শুটিংয়ে প্রিয়ম। ছবি: সৌজন্য মন্দার বন্দ্যোপাধ্যায়

আরও পড়ুন: ফের ডিলডো কুমার, এবার সঙ্গে ‘জাপানি ডল’

বাংলা বিনোদন জগতের জনপ্রিয় অভিনেতা-অভিনেত্রীদের দেখা যাবে এই সিরিজে। প্রথম গল্পটি হল ‘ট্যাক্সি’ যেখানে রয়েছেন অনিন্দ্যপুলক বন্দ্যোপাধ্যায় ও সুদীপ মুখোপাধ্যায়। দ্বিতীয় গল্পটি ‘মায়ের মতো’। অভিনয়ে শ্রীলেখা মিত্র ও সিঞ্চনা সরকার। তৃতীয় গল্পটি হল ‘প্ল্যানচেট’ যেখানে মুখ্য ভূমিকায় রয়েছেন আরজে সায়ন, পার্থসারথী, কৌশিক গোস্বামী ও অন্যান্যরা। চতুর্থ গল্প ‘ডাউনস্টেয়ারস’-এ রয়েছেন গায়ক সিধু, পায়েল দত্ত ও অন্যান্যরা। পঞ্চম গল্পটি হল ‘পারাপার’। মিশমী দাস ও সৌরভ দাসকে দেখা যাবে এই গল্পে। সিরিজটি পরিচালনা করেছেন মৃত্যুঞ্জয়।

এই গা ছমছম সিরিজে অভিনয় করে গা ছমছম আরও বেড়ে গিয়েছে প্রিয়মের। ”আমি ১৯২০ ছবিটা দেখে একমাস বাড়ির আলো নেভাইনি। দিনরাত আলো জ্বলেছে। আর ভয় পেলেই হনুমানজিকে স্মরণ করি। মনে মনে বলি ঠাকুর ভূত-প্রেত-পিশাচ যেন আমার কাছে না আসে”, বেশ কাঁদো কাঁদো হয়েই জানালেন অভিনেত্রী।

Get the latest Bengali news and Entertainment news here. You can also read all the Entertainment news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Prriyam chakraborty ghostphobia increases after acting in a horror series

Next Story
সলমনকে ঘুরিয়ে কথা শোনালেন দীপিকাDeepika Padukone indirectly slams Salman Khan
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com