দেশের বড় খবর: পরিযায়ীদের ফেরাতে সুপ্রিম ডেডলাইন-হাতি হত্য়ায় জালে অভিযুক্ত-তবলিঘিকাণ্ডে সিবিআই তদন্ত নয়

আজ কী ঘটল দেশে? আপডেটেড থাকতে আপনাকে যে খবর জানতেই হবে, দিনের সব গুরুত্বপূর্ণ খবর এই প্রতিবেদনে।

By: New Delhi  Updated: June 6, 2020, 08:07:55 PM

করোনা পরিস্থিতিতে পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরাতে ১৫ দিনের ডেডলাইন বেঁধে দিল সুপ্রিম কোর্ট। এদিকে, কেরালায় নৃশংসভাবে গর্ভবতী হাতিকে হত্য়ার ঘটনায় এক অভিযুক্তকে গ্রেফতার করল পুলিশ। তবলিঘি জামাতকাণ্ডে সিবিআই তদন্তের প্রয়োজন নেই বলে জানিয়ে দিল মোদী সরকার। মধ্য়প্রদেশে বিজেপিতে ভাঙন। দুনিয়ার দীর্ঘতম রেল স্টেশন তৈরি হচ্ছে এবার ভারতে। দিনের এমনই সব গুরুত্বপূর্ণ খবর এক এক করে পড়ুন…

‘১৫ দিনে পরিযায়ীদের ঘরে ফেরান’, কেন্দ্র-রাজ্য়কে সুপ্রিম নির্দেশ

migrant, পরিযায়ী প্রতীকী ছবি।

পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরাতে ১৫ দিনের সময় বেঁধে দিল সুপ্রিম কোর্ট। পরিযায়ী শ্রমিকদের দুর্দশা নিয়ে স্বতঃপ্রণোদিত মামলার শুনানিতে শুক্রবার দেশের শীর্ষ আদালত কেন্দ্র ও রাজ্য়গুলোকে নির্দেশ দিয়েছে, আগামী ১৫ দিনের মধ্য়ে সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরাতে হবে। এ সংক্রান্ত মামলায় আগামী ৯ জুন রায় দেবে দেশের সর্বোচ্চ আদালত।

এদিন সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতাকে বিচারপতি অশোক ভূষণ বলেন, ”সমস্ত পরিযায়ীদের ফেরাতে কেন্দ্র ও রাজ্য়কে ১৫ দিন সময় দেওয়া হচ্ছে। পরিযায়ীদের জন্য় কর্মসংস্থান ও অন্য়ান্য় পুনর্বাসনে কীভাবে ব্য়বস্থা নেবে রাজ্য়গুলো, সে সম্পর্কে রেকর্ড রাখতে হবে। পরিযায়ীদের তালিকাভুক্ত করতে হবে”।

*পরিযায়ী শ্রমিকদের ১৫ দিনের মধ্য়ে ঘরে ফেরাতে হবে
*কেন্দ্র ও রাজ্য়কে ১৫ দিনের ডেডলাইন সুপ্রিম কোর্টের
*এ সংক্রান্ত মামলায় আগামী ৯ জুন রায় দেবে দেশের সর্বোচ্চ আদালত

আদালতে এদিন সলিসিটর জেনারেল জানান, ৩ জুন পর্যন্ত ৪ হাজার ২০০টিরও বেশি শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে করে পরিযায়ীদের ঘরে ফেরানো হয়েছে। তিনি এও জানিয়েছেন যে, এখনও পর্যন্ত ১ কোটিরও বেশি পরিযায়ীকে তাঁদের নিজেদের গন্তব্য়ে ফেরানো হয়েছে। পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরাতে আর কত ট্রেন লাগবে সে ব্য়াপারে জানাতে পারে রাজ্য়গুলো। (Read the full story in English)

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

মধ্য়প্রদেশে বিজেপিতে ভাঙন, কংগ্রেসে ফিরলেন আরও এক পদ্ম-নেতা

congress, কংগ্রেস ছবি: টুইটার।

মধ্য়প্রদেশে উপনির্বাচনের মুখে দলবদলের রাজনীতি তুঙ্গে। পদ্মশিবির থেকে আরও এক নেতা কংগ্রেসের ‘হাত’ ধরলেন। প্রাক্তন মন্ত্রী তথা বিজেপি নেতা বলেন্দু শুক্লা কংগ্রেসে ফিরলেন। মাধবরাও সিন্ধিয়ার ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত শুক্লা। এই দলবদলের জেরে বিজেপি তথা জ্য়োতিরাদিত্য় সিন্ধিয়া শিবির যথেষ্ট চাপে পড়ল বলেই দাবি বিরোধী শিবিরের।

প্রায় ১৩ বছর মন্ত্রিত্ব সামলেছেন শুক্লা। গোয়ালিয়রের নেতা তিনি। কয়েক বছর আগে কংগ্রেস ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন শুক্লা। প্রাক্তন মুখ্য়মন্ত্রী কমল নাথের বাসভবনে এদিন কংগ্রেসের সদস্য়পদ গ্রহণ করেন তিনি। জ্য়োতিরাদিত্য় সিন্ধিয়ার সঙ্গে মতভেদের জেরেই শুক্লা কংগ্রেস ছেড়েছিলেন বলে দাবি করেছেন কমল নাথ। কংগ্রসে সিন্ধিয়া আর না থাকাতেই ফের শুক্লা দলে ফিরলেন বলে জানিয়েছেন মধ্য়প্রদেশের প্রাক্তন মুখ্য়মন্ত্রী।

*বিজেপি ছেড়ে কংগ্রেসে ফিরলেন বালেন্দু শুক্লা
*কয়েক বছর আগে কংগ্রেস ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন শুক্লা
*জ্য়োতিরাদিত্য় সিন্ধিয়ার সঙ্গে মতভেদের জেরেই শুক্লা কংগ্রেস ছেড়েছিলেন বলে দাবি করেছেন কমল নাথ
* মধ্য়প্রদেশে উপনির্বাচনে প্রার্থী হতে পারেন শুক্লা

২৪ আসনে উপনির্বাচনের দিনক্ষণ ঘোষণা হলেই শুক্লাকে কংগ্রেস প্রার্থী করতে পারে বলে জোর জল্পনা রাজনৈতিক মহলে। উল্লেখ্য়, এর আগে, সম্প্রতি বিজেপি ছেড়ে কংগ্রেসে ফিরেছেন প্রাক্তন সাংসদ প্রেমচাঁদ গুড্ডু।

দেশের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন নীচে…

কেরালায় গর্ভবতী হাতি হত্যাকাণ্ডে গ্রেফতার এক

গর্ভবতী হাতি হত্যাকাণ্ডে গ্রেফতার এক

কেরলায় গর্ভবতী হাতিকে আনারসের মধ্যে বাজি পুরে হত্যার ঘটনায় একজনকে গ্রেফতার করল পুলিশ। রাজ্যের বনমন্ত্রী কে রাজু এই কথা জানিয়েছেন। ধৃতের নাম উইলসন। আমবালাপ্পাড়া এলাকায় কৃষিকাজের সঙ্গে যুক্ত অভিযুক্ত। বাকি অভিযুক্তদের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিশ।

* ঘটনার তদন্তে উচ্চ পর্যায়ের তদন্ত দল গঠন কেরালা সরকারের
* অপরাধীদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থার আশ্বাস মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়নের
* বুনো শুয়োর মারার জন্য ব্যবহৃত ফলই খেয়েই হাতির মৃত্যু বলে অনুমান
* কেরালা, কর্ণাটক, এবং তামিলনাড়ুতে এই ধরনের ফাঁদ হামেশাই পাতা হয়, যার ফলে আগেও হাতির মৃত্যু হয়েছে
* হাতিটিকে জখম করার ঘটনাস্থল কোথায় তা চিহ্নিত হযনি: কে কে সুনীল কুমার, ফরেস্ট অফিসার, মানারক্কড়

আনারসের মধ্যে বাজি পুরে গর্ভবতী হাতিকে হত্যার মতো নৃশংসতায় সারা দেশ কেঁপে উঠেছে। সোচ্চার হয়েছে বিভিন্ন মহল। গত ৩০ মে সোশাল মিডিয়ায় একটি পোস্টের মাধ্যমে পুরো বিষয়টি প্রকাশ্যে এসেছিল। হাতিটি বাজি ভর্তি আনারস খেয়ে যন্ত্রনায় ছটফট করতে করতে নদীতে চলে যায়। সেখানেই মৃত্যু হয় হাতিটির।

দেশের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন নীচে…

ভারত-চিন সীমান্ত বিবাদ মেটাতে শনিবার সামরিক পর্যায়ের বৈঠক

india china ladakh, ভারত চিন, লাদাখ, chinese transgressions, rajnath singh, রাজনাথ সিং, রাজনাথ, ভারত, চিন, donald trump, ডোনাল্ড ট্রাম্প, ট্রাম্পের মধ্য়স্থতার প্রস্তাব, ভারত চিন অচলাবস্থা, ভারত চিন টানাপোড়েন, india china, india china standoff in ladakh, ladakh standoff, line of actual control standoff, ভারত চিন, লাদাখ আমেরিকা,india china border, indian express bangla ছবি: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

ভারত-চিন সীমান্ত বিবাদ ঘিরে উত্তেজনার আবহে শনিবার সামরিক পর্যায়ে আলোচনায় বসছে দু’দেশ। শনিবারের বৈঠকে বিতর্কিত জায়গায় স্থিতাবস্থা ফেরানোর প্রস্তাব দিতে পারে ভারত, দ্য় ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস সূত্রে এমনটাই খবর।

জানা যাচ্ছে, ভারতের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্বে থাকবেন ১৪ কোরের কমান্ডার লেফটেন্য়ান্ট জেনারেল হরিন্দর সিং। শনিবার চুশুল-মলডো সেনা ছাউনিতে বৈঠক হবে। বৈঠকে প্রথম বক্তব্য় রাখবেন লেফটেন্য়ান্ট জেনারেল হরিন্দর সিং।

শনিবারের বৈঠকের আগেই সীমান্ত বিবাদ মেটাতে শান্তিপূর্ণ সমাধানের পথেই হাঁটতে রাজি হল ভারত ও চিন। শান্তিপূর্ণ সমাধানের ব্য়াপারে শুক্রবার সম্মত হয়েছে দু’দেশই। উল্লেখ্য়, পূর্ব লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা নিয়ে গত ১ মাস ধরে উত্তেজনার পারদ চড়ছে ভারত-চিন সীমান্তে।

শুক্রবার ভারতের বিদেশমন্ত্রকের যুগ্ম সচিব নবীন শ্রীবাস্তবের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্স করেন চিনা বিদেশমন্ত্রকের ডিরেক্টর জেনারেল। এই ভিডিও বৈঠকেই সীমান্ত ইস্য়ু মেটাতে দু’দেশ শান্তিপূর্ণ আলোচনা চালাতে সম্মত হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।

*ভারত-চিন সীমান্ত বিবাদ মেটাতে শনিবার সামরিক পর্যায়ে বৈঠক

*ভারতের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্বে থাকবেন ১৪ কোরের কমান্ডার লেফটেন্য়ান্ট জেনারেল হরিন্দর সিং

*শনিবার চুশুল-মলডো সেনা ছাউনিতে বৈঠক হবে।
* জট কাটাতে শান্তিপূর্ণ আলোচনা চালাতে সম্মত হয়েছে দু’দেশই

উল্লেখ্য়, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায় বিবাদ মেটাতে লেফটেন্য়ান্ট জেনারেল পর্যায়ের বৈঠক কার্যত বিরল ঘটনা। এসব ক্ষেত্রে অতীতে মেজর জেনারেল ও ব্রিগেডিয়ারদের মধ্য়ে বৈঠক হয়েছে।

সূত্রের খবর, লেফটেন্য়ান্ট জেনারেল হরিন্দর সিংয়ের সঙ্গে সম্ভবত থাকবেন তৃতীয় ইনফ্য়ান্ট্রি ডিভিশনের প্রধান, ব্রিগেড কমান্ডার, লোকাল ব্য়াটেলিয়নের কমান্ডিং অফিসার, একজন অনুবাদক ও দুই আধিকারিক। (Read the full story in English)

দেশের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন নীচে…

তবলিঘিকাণ্ডে এখনই সিবিআই তদন্ত নিষ্প্রয়োজন: কেন্দ্র

মার্চে দিল্লির নিজামুদ্দিনে তবলিঘি জামাত ঘিরে দেশজুড়ে শোরগোল পড়ে যায়।

তবলিঘি জামাতকাণ্ডে সিবিআই তদন্তের প্রয়োজন নেই। শুক্রবার সুপ্রিম কোর্টে জানাল কেন্দ্র। মোদী সরকারের দাবি, এই মামলার তদন্তে দিল্লি পুলিশের অপরাধ দমন শাখা অনেকটাই অগ্রসর হয়েছে। বর্তামানে তাই কেন্দ্রীয় গোয়ান্দা সংস্থার তদন্তের প্রয়োজন নেই।

হলফনামায় কেন্দ্র জানিয়েছে, ‘দিল্লির নিজামুদ্দিনে তবলিঘি জামাকাণ্ডের দিল্লি পুলিশের অপরাধ দমনশাখা তদন্তে অনেকটাই এগিয়েছে। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই তদন্ত শেষ করা হবে। সুতরাং সিবিআই তদন্তের আবেদনটি যুক্তিগ্রাহ্য ও বিবেচনা যোগ্য নয়।’

এছাড়াও কোর্টে কেন্দ্রীয় সরকার জানিয়েছে, ‘তবলিঘি কর্তৃপক্ষকে ২১ শে মার্চ পরিস্থিতি সম্পর্কে অবহিত করা হয়েছিল এবং দেশি এবং বিদেশি অংশগ্রহনকারীদের নিজের জায়গায় ফেরৎ পাঠানোর কথা বলা হয়েছিল, কিন্তু কেউ তা গ্রাহ্য করেনি।’

* মার্চে দিল্লির নিজামুদ্দিনে তবলিঘি জামাতের অনেকেই করোনা আক্রান্ত হন, যা ঘিরে দেশজুড়ে শোরগোল পড়ে যায়
* প্রায় ২ হাজারেরও বেশি তবলিঘি বিদেশি পর্যটন ভিসায় ভারতে এসেছিলেন
* ভিসা নীতি লঙ্ঘনের দায়ে ১৭০০ জনেরও বেশি সদস্যকে কালোতালিকাভুক্ত করেছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক
* তবলিঘি জামাতের বিরুদ্ধে আর্থিক তছরুপের মামলা দায়ের ইডি-র
* ধর্মীয় সংগঠনের আর্থিক লেনদেন নিয়ে তদন্ত শুরু করেছে সিবিআই
* ২৮ মে তবলিঘি জামাত প্রধান মৌলনা সাদ কান্ধলভি সহ সংগঠনের বহু সদস্যদের বিরুদ্ধে একাধিক চার্জশিট পেশ দিল্লি পুলিশের

করোনা আবহেও এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে রাজনীতির রং লাগে। মোদী সরকারকে নিশানা করে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো।

দেশের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন নীচে…

আরও এক বিধায়কের পদত্যাগ, গুজরাটে বিপাকে কংগ্রেস

সোনিয়া ও রাহুল গান্ধী।

গুজরাটে আরও এক কংগ্রেস বিধায়কের ইস্তফা। পদত্যাগ করলেন মুরবির হাত শিবিরের বিধায়ক ব্রিজেশ মেরজা। বিধায়ক পদ ছাড়ার সঙ্গেই মেরজা কংগ্রেসের প্রাথমিক সদস্যপদও ছেড়ে দিয়েছেন। বৃহস্পতিবারই বিধায়ক পদ থেকে ইস্তফা দেন কংগ্রেসের দুই বিধায়ক অক্ষয় প্যাটেল ও জিতু চৌধুরী। ইতিমধ্যেই এই তিন বিধায়করে ইস্তফা গ্রহণ করেছেন স্পিকার। ফলে ১৯ জুন রাজ্যসভা ভোটের আগে ঘোর অস্বস্তিতে কংগ্রেস।

মানুষের সেবা করার জন্যই কংগ্রেসে যোগ দিয়েছিলেন তিনি, তবে বর্তমানে সেই সুযোগ নেই। এই কারণেই তাঁর কংগ্রেস ত্যাগ। দলের অন্তবর্তী চেয়ারপার্সন সোনিয়া গান্ধীকে পদত্যাগী চিঠিতে একথাই লিখেছেন ব্রিজেশ মেরজা।

* মার্চে নির্বাচনের দিন ঘোষণা হতেই ৫ কংগ্রেস বিধায়ক পদত্যাগ করেন
* মোট ৮ কংগ্রেস বিধায়ক বিধানসভার সদস্যপদ ছাড়লেন
* ১৮২ সদস্যের গুজরাত বিধানসভায় ক্ষমতাসীন দল বিজেপির দখলে ১০৩ বিধায়ক
* বিরোধী কংগ্রেসের ৬৬ জন বিধায়ক, এছাড়াও রয়েছেন অন্যান্যরা
* বিধায়ক শূন্য আর ৯ আসন
* গুজরাটে রাজ্যসভার চার আসনে ভোট হবে
* অঙ্কের হিসাবে দু’টিতে কংগ্রেসের জয়ের সম্ভাবনা ছিল
* ৩ বিধায়কের পদত্যাগে সেই সম্ভাবনা কার্যত শেষ

ভোটের আগে পদ্ম শিবিরের বিরুদ্ধে দল ভাঙানোর অভিযোগ করেছে কংগ্রেস।

দেশের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন নীচে…

করোনা সংকটে দেশে নয়া কোনও প্রকল্পে অর্থ নয়, জানাল অর্থমন্ত্রক

প্রতীকী ছবি।

অর্থমন্ত্রক সমস্ত মন্ত্রক ও তাদের বিভিন্ন বিভাগকে বলে দিয়েছে বর্তমান আর্থিক বর্ষে যেন নতুন কোনও প্রকল্প না নেওয়া হয়। একইসঙ্গে জানানো হয়েছে এই সম্পদ করোনাভাইরাস সংকটে ভোগা দেশের উন্নয়নের কাজে ব্যবহৃত হবে।

অর্থমন্ত্রকের অধীন ব্যয়বিভাগের এক অফিস মেমোরান্ডামে বলা হয়েছে, কোভিড ১৯ অতিমারীর পরিস্থিতিতে সরকারি অর্থসম্পদের এক অভূতপূর্ব চাহিদা দেখা দিয়েছে এবং ক্রমবর্ধমান ও ক্রমপরিবর্তনশীল পরিস্থিতিতে এই সম্পদ যথাযথ ভাবে ব্যবহার করা প্রয়োজন।

*বর্তমান আর্থিক বর্ষে যেন নতুন কোনও প্রকল্প না নেওয়া হয়
* ঘোষিত প্রকল্পে যথাযথভাবে ব্যয় করা হবে
*কোভিড ১৯ অতিমারীর পরিস্থিতিতে সরকারি অর্থসম্পদের এক অভূতপূর্ব চাহিদা দেখা দিয়েছে এবং ক্রমবর্ধমান ও ক্রমপরিবর্তনশীল পরিস্থিতিতে এই সম্পদ যথাযথ ভাবে ব্যবহার করা প্রয়োজন।

তবে যেসব প্রকল্প ইতিমধ্যেই ঘোষিত হয়েছে, যেমন প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ প্যাকেজ বা আত্মনির্ভর ভারত অভিযান প্যাকেজ, সেগুলিতে যথাযথভাবে ব্যয় করা হবে। সম্পূর্ণ প্রতিবেদন পড়ুন-কোভিড সংকটে দেশ- নতুন কোনও প্রকল্পে অর্থ নয়, জানিয়ে দিল অর্থমন্ত্রক

দেশের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন নীচে…

দুনিয়ার দীর্ঘতম রেল স্টেশন এবার ভারতে

সপ্তম আশ্বর্যের এক আশ্বর্য তাজমহল থেকে পৃথিবীর উচ্চতম মূর্তি সর্দার বল্লভভাই প্যাটেলের ‘স্ট্যাচু অফ ইউনিটি’ রয়েছে ভারতেই। এবার সেই মুকুটে জুড়তে চলেছে আরেক পালক। বিশ্বের দীর্ঘতম রেলস্টেশন এবার তৈরি হচ্ছে ভারতেই।

কর্ণাটকের হুব্বাল্লি রেলস্টেশনে তৈরি হচ্ছে ১৪০০ মিটার লম্বা এবং ১০ মিটার চওড়া সেই স্টেশন। খবরের নিশ্চিত করে দক্ষিণ-পশ্চিম রেলের আধিকারিকরা ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস ডট কম-কে জানিয়েছেন যে এখন প্ল্যাটফর্ম বৃদ্ধির কাজ চলছে। হুব্বাল্লির ১ নম্বর প্ল্যাটফর্মে এই কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই।

*বিশ্বের দীর্ঘতম রেলস্টেশন এবার তৈরি হচ্ছে ভারতেই
*কর্ণাটকের হুব্বাল্লি রেলস্টেশনে তৈরি হচ্ছে ১৪০০ মিটার লম্বা এবং ১০ মিটার চওড়া সেই স্টেশন
*হুব্বাল্লির ১ নম্বর প্ল্যাটফর্মে এই কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই

রেলের আধিকারিকেরা জানান যে আগে তৈরি করা এই প্ল্যাটফর্মটি ছিল ৫৫০ মিটার লম্বা। যেটিকে ১৪০০ মিটার করার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। দক্ষিণ-পশ্চিম রেলের জনসংযোগ আধিকারিক বলেন, “ওয়ার্ডগুলির পুনর্নির্মাণ করা হবে, বিল্ডিংয়ের কাজ বাকি, সিগনালিং, গেট বানান, ইলেক্ট্রিকের কাজ অনেকটাই বাকি। এর জন্য ৯০ কোটি টাকা ব্যয় করা হয়েছে। এক বছরের মধ্যেই শেষ হবে কাজ।” সম্পূর্ণ প্রতিবেদন পড়ুন-বিশ্বের দীর্ঘতম রেলস্টেশন তৈরি হচ্ছে ভারতেই

দিনের সব গুরুত্বপূর্ণ জাতীয় খবরগুলি পড়ুন এই প্রতিবেদনে

Get all the Latest Bengali News and West Bengal News at Indian Express Bangla. You can also catch all the General News in Bangla by following us on Twitter and Facebook

Web Title:

India top news 5th june 2020 kerela elephant pm narendra modi bjp congress

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com.
Advertisement

ট্রেন্ডিং
রাশিফল
X