বড় খবর

‘সারদাকাণ্ডে তৃণমূলের সব পদাধিকারীকেই ডাকবে সিবিআই’, জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বিস্ফোরক দীনেশ ত্রিবেদী

‘‘যেদিন ডেকেছেন, সেদিনই চলে গিয়েছিলাম। সময় নেওয়ার প্রয়োজন মনে করিনি…সিবিআইয়ের কাছে হাজিরা দেওয়া অস্বস্তির কিছু নেই। কেউ ভুল করে থাকলে তবে ভয় পাবেন’’।

dinesh trivedi, দীনেশ ত্রিবেদী
দীনেশ ত্রিবেদী। ছবি: ফেসবুক।
যত দিন গড়াচ্ছে, ততই সারদাকাণ্ডে তদন্তে তৎপর হচ্ছে সিবিআই। সারদা কেলেঙ্কারিতে এবার তৃণমূলের প্রাক্তন সাংসদ তথা প্রাক্তন রেলমন্ত্রী দীনেশ ত্রিবেদীকে জিজ্ঞাসাবাদ করল সিবিআই। গত সোমবার সিজিও কমপ্লেক্সে ব্যারাকপুরের প্রাক্তন সাংসদকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় বলে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলাকে জানিয়েছেন দীনেশ ত্রিবেদী। উল্লেখ্য, সোমবারই দীনেশকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করেছিল সিবিআই। আর সেদিনই সিবিআই দফতরে হাজিরা দেন প্রাক্তন সাংসদ। এ প্রসঙ্গে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলাকে দীনেশ ত্রিবেদী বলেন, ‘‘যেদিন ডেকেছেন, সেদিনই চলে গিয়েছিলাম। সময় নেওয়ার প্রয়োজন মনে করিনি…সিবিআইয়ের কাছে হাজিরা দেওয়াটা অস্বস্তির কিছু নেই। কেউ ভুল করে থাকলে তবে ভয় পাবেন’’। একইসঙ্গে দীনেশের দাবি, সারদাকাণ্ডে তৃণমূলের সব পদাধিকারীকেই ডাকবে সিবিআই।


আরও পড়ুন: মিঠুনের মতো সারদার টাকা ফেরাতে চান শতাব্দীও

সিবিআই সূত্রে জানা গিয়েছে, ২০১১ সালে তৃণমূলের জেনারেল সেক্রেটারি পদে ছিলেন দীনেশ ত্রিবেদী। তৃণমূলের হিসেবনিকেশ সংক্রান্ত তথ্য সম্পর্কে জানতেই দীনেশকে তলব করা হয় বলে জানা গিয়েছে। সারদার সঙ্গে তৃণমূলের কোনও যোগ ছিল কিনা, এ ব্যাপারেও জানতে চান তদন্তকারীরা। সারদার টাকা তৃণমূলের অ্যাকাউন্টে গিয়েছিল কিনা সে ব্যাপারেও জানতে চায় সিবিআই।

আরও পড়ুন: ‘প্রসেনজিৎ-ঋতুপর্ণাদের ডেকে বলছে বিজেপি নেতাদের সঙ্গে যোগযোগ করো’

সিবিআই জিজ্ঞাসাবাদ প্রসঙ্গে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলাকে দীনেশ ত্রিবেদী জানান, ‘‘তদন্ত চলছে, তাই ডেকেছে। যাঁরা পদাধিকারী, তাঁদের সকলেই ডাকবে। ওরা (সিবিআই) ওদের ডিউটি করছে, আমিও আমার ডিউটি করছি। খুবই ভাল জিজ্ঞাসাবাদ হয়েছে। কোনওরকম হেনস্থার মুখে পড়তে হয়নি। যাকে যাকে ডাকবে, তাঁদের যাওয়া উচিত। আমার ব্যাকগ্রাউন্ড সকলেই জানেন। তাছাড়া সিবিআইয়ের কাছে যাওয়াটা অস্বস্তির কিছু নেই। ভুল করে থাকলে কেউ ভয় পাবেন’’।

প্রসঙ্গত, লোকসভা ভোটের পরই সারদা তদন্তে জোর তৎপরতা শুরু করেছে ইডি-সিবিআই। ইতিমধ্যেই এ মামলায় তৃণমূলের প্রাক্তন সাংসদ কুণাল ঘোষকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে সিবিআই। পাশাপাশি বীরভূমের তৃণমূল সাংসদ শতাব্দী রায়কেও তলব করেছে। তলবের জবাবে ইডিকে চিঠি লিখে মিঠুন চক্রবর্তীর কায়দায় সারদার টাকা ফেরত দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছেন অভিনেত্রী তথা তৃণমূল সাংসদ শতাব্দী রায়। সারদার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হিসেবে নেওয়া টাকা ফেরত দেওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ করে ইডিকে চিঠি লিখেছেন শতাব্দী। চিঠিতে বীরভূমের সাংসদ জানিয়েছেন, সারদার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হিসেবে ৪২ লক্ষ টাকা নেওয়ার কথা ছিল তাঁর। কিন্তু টিডিএস কেটে তিনি পেয়েছিলেন ২৯ লক্ষ টাকা। সেই ২৯ লক্ষ টাকাই ইডির হাতে শতাব্দী তুলে দিতে চান। আগামী ৭ অগাস্ট সংসদে অধিবেশন শেষের পরই ইডি দফতরে গিয়ে সেই টাকা ফেরত দিতে চান বলে চিঠিতে জানিয়েছেন শতাব্দী।

Get the latest Bengali news and Kolkata news here. You can also read all the Kolkata news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Cbi questions tmc ex mp dinesh trivedi over saradha scam

Next Story
বিধাননগর পুরনিগম তোলপাড়, ঘরে বসে খুঁটিয়ে বই পড়ছেন ডেপুটি মেয়রSalt Lake Deputy mayor
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com