বড় খবর

চেনা নেমেসিসে ধ্বংস কোহলিরা! বিশ্বকাপ থেকে লজ্জার বিদাযের মুখে ভারত

প্রথম ম্যাচে ভারত পাকিস্তানের কাছে হেরে বসায় রবিবারের ম্যাচ ছিল ভারতের কাছে মাস্ট উইন। হারলেই সেমিফাইনালে পৌঁছনো নিয়ে প্রশ্নচিহ্ন উঠে যেত।

ভারত: ১১০/৭
নিউজিল্যান্ড: ১১১/২

১৮ বছরের ট্র্যাডিশনই অক্ষত থাকল মরুশহরে। আইসিসি টুর্নামেন্টে ভারতের বিরুদ্ধে অপরাজেয় থাকার নজির সঙ্গে নিয়েই মাঠ ছাড়ল নিউজিল্যান্ড। ভারতকে বিধ্বস্ত করে। টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে দিয়ে। প্রথমে ব্যাট করে ভারত ১১০ রান স্কোরবোর্ডে জড়ো করেছিল কোনওরকমে। সেই টার্গেট হেলায় পেরিয়ে গেল নিউজিল্যান্ড। হাতে ৩৩ বল এবং ৮ উইকেট নিয়ে।

চাপ, অনন্ত চাপ। সেই চাপে মাথা নুইয়ে মাঠ ছাড়ল ভারত। পুরোপুরি চোক করে গেল ভারতের ব্যাটিং। পাক ম্যাচেও ভারতের ব্যাটিং ভুগিয়েছিল। এদিন সেই একই চিত্র। ওপেনিং জমাটি না হলেই চাপে খেই হারিয়ে ফেলে ভারত। সেই একিলিস হিল!

প্রবল গুরুত্বের ম্যাচে ভারত ব্যাটিং কম্বিনেশনেই কিনা পরীক্ষা নিরীক্ষা চালাতে গেল। রোহিত শর্মাকে নামিয়ে দেওয়া হল ওপেনিং থেকে। অদ্ভুত আশ্চর্যের সেই কম্বিনেশন ডাহা ফেল করল যথারীতি।

আরও পড়ুন: হাঁটু মুড়ে প্রতিবাদ জানালেন না কোহলিরা! কেন, জানা গেল তারপরই

পাওয়ার প্লে-র মধ্যেই ভারত জোড়া উইকেট হারিয়ে তুলেছিল মাত্র ৩৫। সেই যে ঠকঠকানি শুরু তা আর থামানো যায়নি। চোখের পলক ফেলার আগেই একের পর এক মহারথীর বিদায়। আয়ারাম গয়ারাম যাকে বলে আর কী!

ঈশান কিষানকে নিয়ে ভারতীয় ক্রিকেটের একাংশে জোরালো আওয়াজ তোলা হচ্ছিল। চেনা ওপেনিংয়ে নেমে তাঁর অবদান ৮ বলে ৪! আইপিএলে বাঘের মত খেলেন কেএল রাহুল। বিশ্বকাপের দুটো ম্যাচের দুটোতেই ব্যর্থ তিনি। সিনিয়র হিসাবে রোহিত প্রথম বলেই আইপিএলে সতীর্থ মিলনে ক্যাচ ফেলায় লাইফলাইন পেয়েছিলেন। তার সদ্ব্যবহার করতে পারলেন না। আউট মাত্র ১৪ করে।

আরও পড়ুন: ওপেনার রোহিতকে সরিয়েও থামল না কুৎসিত বিপর্যয়! ফুঁসে উঠল ক্রিকেট মহল

কোহলি সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ক্যাপ্টেন হিসাবে হয়ত শেষ ম্যাচ খেলে ফেললেন দুবাইয়েই। টি২০ তে আগের ম্যাচে হাফসেঞ্চুরি করলেও স্ট্রাইক রেট নিয়ে প্রশ্ন তোলার অবকাশ দিয়েছিলেন। এদিন ১৭ বল খেলে কোহলির খাতায় ৯ রান।

হার্দিক পান্ডিয়াকে নিয়ে এত আলোচনা গত একসপ্তাহ ধরে। এদিন ২৪ বলে ২৩ করে তিনি মন্দের ভাল। শেষদিকে জাদেজার ১৯ বলে ২৬ না থাকলে ভারত হয়ত একশো-র গন্ডিও পেরোত না।

ম্যাচের আগেই ভারতকে হুঙ্কার দিয়েছিলেন বোল্ট। তা যে কথার কথা নয়, তা বুঝিয়ে দিলেন ম্যাচেই। তিন-তিনটে উইকেট তাঁর নামের পাশে। তবে কিউয়ি বোলারদের মধ্যে সবথেকে প্রভাব ফেলে গেলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত ইশ সোধি। ৪ ওভারে ১৭ রানের বিনিময়ে তাঁর দখলে বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মার উইকেট। ম্যাচের সেরাও তিনি।

১১০ টার্গেট নিয়ে জেতা সম্ভব নয়। তা হয়ওনি। বুমরা ৪ ওভারের কোটায় ১৯ রানে দুই কিউয়ি ওপেনার ড্যারেল মিচেল (৪৯) এবং গাপটিলকে (২০) আউট করলেও কেন উইলিয়ামসন ৩৩ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়েন।

খাতায় কলমে ভারতের আশা এখনও জিইয়ে। সেক্ষেত্রে নিউজিল্যান্ডকে নামিবিয়া, স্কটল্যান্ড অথবা আফগানিস্তানের কাছে হারতে হবে। অন্যদিকে, ভারতকেও টানা শেষ তিন ম্যাচ জিততে হবে। তারপরে আরও একগাদা হিসেব নিকেশ।

ভারতের প্ৰথম একাদশ:
রোহিত শর্মা, কেএল রাহুল, বিরাট কোহলি, ঈশান কিষান, ঋষভ পন্থ, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা, শার্দূল ঠাকুর, বরুণ চক্রবর্তী, মহম্মদ শামি, জসপ্রীত বুমরা

নিউজিল্যান্ড প্ৰথম একাদশ:
মার্টিন গাপটিল, ড্যারেল মিচেল, কেন উইলিয়ামসন, ডেভন কনওয়ে, গ্লেন ফিলিপ, জিমি নিশাম, মিচেল স্যান্টনার, এডাম মিলনে, ইশ সোধি, ট্রেন্ট বোল্ট

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Sports news here. You can also read all the Sports news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: T20 wc 2021 team india suffers humiliating defeat against new zealand

Next Story
ফাইনাল হেরে নিজেকেই দায়ী করলেন রুবেল, কী বললেন তিনি
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com