বড় খবর

ধাওয়ানের জন্য নির্বাচকদের সঙ্গে তীব্র বাদানুবাদ কোহলির, সামনে এল আগুনে ঘটনা

ধাওয়ানকে দলে ঢোকাতে মরিয়া ছিলেন কোহলি। সরাসরি নির্বাচকদের সঙ্গে ঝামেলায় জড়িয়েছিলেন। সামনে এল সেই ঘটনাও।

চলতি বছরের শুরুর দিকে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজে শিখর ধাওয়ানকে রাখা নিয়ে নির্বাচকদের সঙ্গে তর্কাতর্কিতে জড়িয়ে পড়েছিলেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। এমনই তথ্য এবার উঠে এল। কোহলির নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণার পর একের পর এক বিস্ফোরক ঘটনা সামনে আসছে। রোহিত শর্মাকে ভাইস ক্যাপ্টেনশিপ থেকে সরিয়ে দেওয়ার বার্তা দিয়েছিলেন নির্বাচকদের। এমন বিষয় যেমন প্রকাশ্যে চলে এসেছে। তেমনই ধাওয়ানকে নিয়ে কোহলির গোঁ-ও সামনে চলে এল।

নির্বাচকদের আস্থা হারানো শিখর ধাওয়ানকে ওয়ানডে স্কোয়াডে রাখতে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ ছিলেন কোহলি। তিনি বারবার নির্বাচকদের জোর করতে থাকেন। বলেন, ওয়ানডে দলে ধাওয়ানের জায়গা ‘মাস্ট’। নিজের নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর কারণ হিসেবে ওয়ার্কলোড ম্যানেজমেন্টকে সামনে এনেছেন কোহলি। তবে ভারতীয় ক্রিকেট মহলে এখন ওপেন সিক্রেট যে, কোহলির সঙ্গে বোর্ড, নির্বাচকদের সম্পর্ক একদম তলানিতে ঠেকেছিল।

আরও পড়ুন: আরসিবি নেতৃত্বও ছাড়ছেন কোহলি! সামনে এল বোর্ড কর্তার বিস্ফোরক বক্তব্য

এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সদ্য দায়িত্বে আসা নির্বাচক মন্ডলী ধাওয়ানকে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে স্কোয়াডে রাখতে চাইছিল না। ভবিষ্যতের কথা ভেবে নতুনদের সুযোগ দেওয়ার পক্ষপাতী ছিল নির্বাচকদের প্যানেল।

বিজয় হাজারেতে দুরন্ত খেলা এক ওপেনারকে দলে চাইছিলেন নির্বাচকরা। সেই রিপোর্টে সংশ্লিস্ট ক্রিকেটারের নাম প্রকাশ না করা হলেও, ধরে নেওয়া হচ্ছে তিনি পৃথ্বী শ অথবা দেবদূত পাডিক্কল। যদিও পৃথ্বীদের অন্তর্ভুক্ত করতে আগ্রহী ছিলেন না কোহলি। রোহিতের ওপেনিং পার্টনার হিসাবে ধাওয়ানকে নেওয়ার জেদ বজায় রাখেন বিরাট।

আরও পড়ুন: পারলে ওয়ানডের নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেখাও! সৌরভের বোর্ডকেই যেন সরাসরি চ্যালেঞ্জ কোহলির

বৈঠকের সময় কোহলিদের সঙ্গে নির্বাচকদের তীব্র বাদানুবাদ হয় বলেও জানা গিয়েছে। স্কোয়াড বাছাই হয়ে গেলেও সরকারিভাবে ঘোষণার জন্য পাঁচদিন অপেক্ষা করা হয়েছিল ঐক্যমতে পৌঁছতে না পারার জন্য। যদিও সূত্রের খবর, শিখর ধাওয়ানের ঘটনা বাদ দিলে টিম ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে কোহলির সম্পর্ক ভালই ছিল তারপরে।

আরও পড়ুন: রোহিতকে সরাতে বলেন কোহলি! কুৎসিত আবদারে ক্ষিপ্ত বোর্ডও, প্রকাশ্যে বিস্ফোরক রিপোর্ট

যাইহোক, বিরাট কোহলি টি২০-র নেতৃত্ব থেকে প্রস্থানের পরে রোহিত শর্মার হাতেই দায়িত্ব উঠছে। এমনটা প্রায় পাকা। ভাইস ক্যাপ্টেন হওয়ার দৌড়ে এগিয়ে কেএল রাহুল, ঋষভ পন্থ অথবা জসপ্রীত বুমরা। যেহেতু রোহিত শর্মা কেরিয়ারের শেষপ্রান্তে। তাই এই তারকাকেই অধিনায়কত্বের জন্য এখন থেকেই গ্রুম করা হবে। ভবিষ্যতে এঁদের মধ্যে একজনকেই নেতৃত্বের দায়িত্বে আনা হবে। এই মুহূর্তে ভাইস ক্যাপ্টেনের নাম ঘোষণা করবে না বিসিসিআই। টি২০ বিশ্বকাপের পরে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে টি২০ স্কোয়াড ঘোষণা করা হবে। তখনই নতুন সহ অধিনায়কের নাম চূড়ান্ত করবেন নির্বাচকরা।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Sports news here. You can also read all the Sports news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Virat kohli had an heated argument with national selectors over inclusion of shikhar dhawan against england

Next Story
শার্দূলের ধুন্ধুমার ব্যাটিংয়ের পিছনে ধোনি! অনেকেই জানেন না
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com