scorecardresearch

বড় খবর

বিস্ফোরক যুবরাজ, বললেন টিম ম্য়ানেজমেন্টের চাপই তাঁর অবসরের কারণ

বিস্ফোরক যুবরাজ সিং। সাফ বুঝিয়ে দিলেন টিম ম্য়ানেজমেন্টই তাঁকে অবসর নেওয়াতে বাধ্য় করেছে। চলতি বছরের শুরুতেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে আলবিদা বলেছিলেন দেশের বিশ্বকাপ জয়ী স্টার অলরাউন্ডার।

বিস্ফোরক যুবরাজ, বললেন টিম ম্য়ানেজমেন্টের চাপই তাঁর অবসরের কারণ
বিস্ফোরক যুবরাজ, বললেন টিম ম্য়ানেজমেন্টের চাপই তাঁর অবসরের কারণ

বিস্ফোরক যুবরাজ সিং। সাফ বুঝিয়ে দিলেন টিম ম্য়ানেজমেন্টই তাঁকে অবসর নেওয়াতে বাধ্য় করেছে। চলতি বছরের শুরুতেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে আলবিদা বলেছিলেন দেশের বিশ্বকাপ জয়ী স্টার অলরাউন্ডার। সেই যুবিই এবার মুখ খুললেন।

বিলাপের সুরেই পাঞ্জাব পুত্তর জানালেন যে. প্রতি মুহূর্তে তাঁকে নিত্য়নতুন চ্য়ালেঞ্জের মুখে ফেলে দেওয়া হতো নিজের যোগ্য়তা প্রমাণ করার জন্য়। এমনকী তাঁকে কেউ এটাও জানায়নি যে, দল তাঁর থেকে কী চাইছে।

আরও পড়ুন: ধোনির সঙ্গে পন্থের তুলনায় নারাজ যুবি, জানালেন তাঁর নিজস্ব ভাবনা

এক সংবাদমাধ্য়মে দেওয়া সাক্ষাৎকারে যুবরাজ বললেন, “২০১৭-র চ্য়াম্পিয়ন্স ট্রফিতে ৮-৯ টা ম্য়াচের মধ্য়ে দু’টোতে ম্য়ান অফ দ্য় ম্য়াচ হয়েছিলাম। কখনও ভাবিনি যে তারপরেও আমাকে দল থেকে বাদ পড়তে হবে। আমি চোট পেয়েছিলাম সেসময়। বলা হয়েছিল শ্রীলঙ্কা সিরিজের জন্য় নিজেকে প্রস্তুত রাখতে। কিন্তু আচমকাই ইয়ো-ইয়ো টেস্ট চলে এল। দল নির্বাচনের সময় এটাই আমার ইউ-টার্ন হয়ে গেল। ওরা ভেবেছিল আমি এই বয়সে এসে আর এই পরীক্ষায় পাস করতে পারব না। কিন্তু ৩৬ বছর বয়সে দাঁড়িয়েও  আমি ইয়ো-ইয়ো টেস্ট পাস করি।বলা হলো ঘরোয়া ক্রিকেট খেলতে। বলা যেতে পারে ইয়ো-ইয়ো টেস্ট একট অজুহাত ছিল আমাকে দল থেকে বাদ দেওয়ার।”

যুবরাজ বীরেন্দ্র শেহওয়াগ ও জাহির খানের মতো সিনিয়র ক্রিকেটারের নাম করেই তিনি বলেছেন যে, তাঁদের কেরিয়ারের শেষ দিকে টিম ম্য়ানেজমেন্টের আস্থা পাননি। ৩৭ বছরের যুবি ২০১৭-র ৩০ জুন শেষবার দেশের জার্সিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ওয়ান-ডে খেলেছিলেন। তারপর থেকে আর দেশের জার্সিতে দেখা যায়নি তাঁকে। দীর্ঘ ১৯ বছরের কেরিয়ারে ৪০টি টেস্ট ও ৩০৪টি ওয়ান-ডে ও ৫৮টি টি-২০ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন পাঞ্জাব পুত্তর।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Yuvraj singh alleges team management