১০০ এসএমএসের পর আর খরচ লাগবে না! নয়া সিদ্ধান্তের ভাবনায় ট্রাই

টেলিকম কমার্সিয়াল কমিউনিকেশন কাস্টমোর প্রেফারেন্স রেগুলেশন (টিসিসিপিআর) প্রযুক্তি স্প্যাম মেসেজ রোধ করতে পারে। এজন্য এখন ১০০ টি এসএমএসের সীমার প্রয়োজন নেই।

By: Kolkata  February 20, 2020, 12:10:15 PM

টেলিকম রেগুলেটরি অথরিটি অফ ইন্ডিয়া (ট্রাই) একটি খসড়া প্রকাশ করেছে। টেলিকম টকে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুসারে,যেখানে উল্লেখ রয়েছে ১০০টি এসএমএসের পরেও এসএমএস করার প্রয়োজন হলে আর দিতে হবে না ৫০ পয়সা চার্জ। এমনই সিদ্ধান্ত নেওয়ার পরিকল্পনা করতে চলেছে ট্রাই। মূলত, গ্রাহকদের ফোনে একাধিক স্প্যাম মেসেজ আসত, সেটিকে নিয়ন্ত্রণ করতেই এই চার্জ বাস্তবায়ন করা হয়েছিল।

ট্রাই জানিয়েছে, টেলিকম কমার্সিয়াল কমিউনিকেশন কাস্টমোর প্রেফারেন্স রেগুলেশন (টিসিসিপিআর) প্রযুক্তি স্প্যাম মেসেজ রোধ করতে পারে। এজন্য এখন ১০০ টি এসএমএসের সীমার প্রয়োজন নেই।

আরও পড়ুন:মহাকাশে যেতে চান? জনে উপায় ও খরচ

বর্তমানে টেলিকম অপারেটররা যে প্রস্তাবিত প্রিপেইড রিচার্জ প্ল্যান চালু করেছে। তাতে প্রতিদিন ১০০ টি এসএমএস করা যায়। কিন্তু, ব্যবহারকারীরা যাতে একশোর অধিক মেসেজ দিনে করতে পারে সেদিকে দৃষ্টি নিক্ষেপ করেছে কেন্দ্র।

আরও পড়ুন:ফাস্ট্যাগ প্রযুক্তি ব্যবহার করে ‘স্মার্ট ডায়াপার’! ভিজে গেলে নোটিফিকেশন পৌঁছে যাবে মায়ের কাছে

টেলিযোগাযোগ অপারেটররা ট্রাইয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী, ১০০ এসএমএস এর বেশি এসএমএস করলে প্রতি এসএমএস পিছু ৫০ পয়সা খরচ দিতে হয় গ্রাহকদের।

২০১২ সাল থেকে ট্রাই ব্যবহারকারীদের জন্য প্রতিদিন ১০০ টি এসএমএস সীমাবদ্ধ করা শুরু হয়েছিল। বিগত কয়েক বছর ধরে, ট্রাই টেলিকম অপারেটরদের স্প্যাম এসএমএস প্রতিরোধের নতুন উপায় প্রবর্তনের চেষ্টা করছে। সম্প্রতি, স্প্যাম কল এবং মেসেজ রোধ করার জন্য নতুন ব্লকচেইন প্রযুক্তি প্রয়োগ করছে। গত বছরের নভেম্বরে ব্লকচেইন-ভিত্তিক ডিস্ট্রিবিউটেড লেজার টেকনোলজি (ডিএলটি) প্ল্যাটফর্মের নাম প্রকাশ্যে এসেছিল।

 

Read the full story in English 

Get all the Latest Bengali News and West Bengal News at Indian Express Bangla. You can also catch all the Technology News in Bangla by following us on Twitter and Facebook

Web Title:

Trai doesnt want users to pay after 100 smses seeks removal of limit

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com.
Advertisement

ট্রেন্ডিং
করোনা আপডেট
X