Ncp

Result: 1- 17 out of 35 Bangla Articles Found
শেষ পর্যন্ত উদ্ধবের ডেপুটিও অজিত, শপথ আদিত্য ঠাকরের

শেষ পর্যন্ত উদ্ধবের ডেপুটিও অজিত, শপথ আদিত্য ঠাকরের

এর আগে বিজেপির ৮০ ঘন্টার সরকারেও দেবেন্দ্র ফড়নবীশের সহকারী ছিলেন ছোটে পাওয়ার।

উদ্ধব মন্ত্রিসভাতেও উপমুখ্যমন্ত্রী অজিত পাওয়ার

উদ্ধব মন্ত্রিসভাতেও উপমুখ্যমন্ত্রী অজিত পাওয়ার

এর আগে ৮০ ঘন্টার জন্য বিজেপির দেবেন্দ্র ফড়নবীশ সরকারেরও উপমুখ্যমন্ত্রী হয়েছিলেন শরদ পাওয়ারের ভাইপো।

মহারাষ্ট্রেও সিএএ ও এনআরসি লাগু হবে না: শরদ পাওয়ার

মহারাষ্ট্রেও সিএএ ও এনআরসি লাগু হবে না: শরদ পাওয়ার

'সিএএ ও এনআরসি লাগুর ফলে দেশের ধর্মীয় ও সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি খুণ্ণ হবে। ফলে দেশের করুন অর্থনৈতিক অবস্থা থেকে মানুষের দৃষ্টি ঘুরে যাবে। সেই সুযোগকেই কাজে লাগানোর চেষ্টা করছে বিজেপি।'

শিবসেনা কি বদলে যাচ্ছে?

শিবসেনা কি বদলে যাচ্ছে?

শপথ গ্রহণের সময় উদ্ধব কিন্তু শিব সৈনিকের গৈরিক পোশাক পরেই মঞ্চে আসেন এবং ভুলে গেলে চলবে না, এই মঞ্চ থেকেই বালাসাহেব তাঁর শিবসেনার যাত্রা শুরু করেন।

প্রার্থী প্রত্যাহার বিজেপির, কংগ্রেসের নানা পাটোলে মহারাষ্ট্রের স্পিকার  নির্বাচিত

প্রার্থী প্রত্যাহার বিজেপির, কংগ্রেসের নানা পাটোলে মহারাষ্ট্রের স্পিকার নির্বাচিত

রবিবার সকাল ১০টায় কাথোরের নাম তুলে নেওয়া হচ্ছে বলা জানান বিজেপির পরিষদীয় নেতা দেবেন্দ্র ফড়নবীশ।

১৬৯ বিধায়কের সমর্থনে আস্থা ভোটে জয় ঠাকরে সরকারের

১৬৯ বিধায়কের সমর্থনে আস্থা ভোটে জয় ঠাকরে সরকারের

এদিন আস্থা ভোটের শুরুতেই সরকার পক্ষ রুল মানছে না বলে হই-হট্টগোল শুরু করে বিজেপি। প্রোটেম স্পিকার গেরুয়া শিবিরের দাবি খারিজ করতেই সভা ছেড়ে বেরিয়ে যান ফড়নবীশরা। ফলে সহজেই জয় হাসিল করে আগাড়ি জোট সরকার।

কৃষিঋণ মকুব, চাকরিতে স্থানীয়দের ৮০ শতাংশ সংরক্ষণ, মহারাষ্ট্রে জোট সরকারের অভিন্ন ন্যূনতম কর্মসূচি ঘোষিত

কৃষিঋণ মকুব, চাকরিতে স্থানীয়দের ৮০ শতাংশ সংরক্ষণ, মহারাষ্ট্রে জোট সরকারের অভিন্ন ন্যূনতম কর্মসূচি ঘোষিত

কর্মসূচিতে স্থান পেয়েছে বেরোজগারি, মহিলা, শিক্ষা, নগরোন্নয়ন, স্বাস্থ্য, শিল্প, সামাজিক ন্যায়, পর্যটন ইত্যাদি ইস্যুও।

মহানাটকে যবনিকা, মুখ্যমন্ত্রীর কুর্সিতে উদ্ধব ঠাকরে

মহানাটকে যবনিকা, মুখ্যমন্ত্রীর কুর্সিতে উদ্ধব ঠাকরে

উপস্থিত ছিলেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়নবীশ।ঠাকরে পরিবার থেকে এই প্রথম কোনও সদস্য রাজ্যের সর্বোচ্চ প্রশাসনিক পদে বসবেন।

বিশ্লেষণ: মহারাষ্ট্রের সেচ দুর্নীতি এবং অজিত পাওয়ার

বিশ্লেষণ: মহারাষ্ট্রের সেচ দুর্নীতি এবং অজিত পাওয়ার

২০১২ সালের মার্চ মাসে বিধানসভায় বার্ষিক আর্থিক সার্ভেতে জানানো হল, ১০ বছরের বেশি সময় ধরে বিভিন্ন বাঁধ প্রকল্পে ৭০ হাজার কোটি টাকার বেশি খরচ করে সেচের আওতায় এসেছে মোট ০.১ শতাংশ এলাকা।

‘বেঁচে থাকলে খুশি হতেন বালাসাহেব’, স্মৃতিমেদুর পাওয়ার

‘বেঁচে থাকলে খুশি হতেন বালাসাহেব’, স্মৃতিমেদুর পাওয়ার

মহারাষ্ট্রে শিবসেনা-এনসিপির জোট বড় চমক নয়। এর আগেও এনসিপি-র সঙ্গে শিবসেনার বন্ধুত্বের নিদর্শন দেখেছে মারাঠি জনতা। তখন কংগ্রেসে ছিলেন পাওয়ার। যদিও এই প্রীতি সব সময় বজায় ছিল না।

মহারাষ্ট্রে বুধবার আস্থা ভোট, কী ভাবে স্থির হবে ভবিষ্যৎ?

মহারাষ্ট্রে বুধবার আস্থা ভোট, কী ভাবে স্থির হবে ভবিষ্যৎ?

আস্থা ভোটের মাধ্যমে মুখ্যমন্ত্রী প্রমাণ করেন তাঁর সঙ্গে রয়েছেন সংখ্যাগরিষ্ঠ বিধায়ক।

মহারাষ্ট্র বিধানসভায় আজ প্রথম অধিবেশন, শপথের অপেক্ষায় উদ্ধব ঠাকরে

মহারাষ্ট্র বিধানসভায় আজ প্রথম অধিবেশন, শপথের অপেক্ষায় উদ্ধব ঠাকরে

মুখ পুড়েছে বিজেপির। আজ আস্থা ভোটের মুখোমুখি হতে হবে আগারি জোটকে।

মুম্বাইয়ের পাঁচতারা হোটেলে সৎ থাকার শপথ সেনা-এনসিপি-কংগ্রেস বিধায়কদের

মুম্বাইয়ের পাঁচতারা হোটেলে সৎ থাকার শপথ সেনা-এনসিপি-কংগ্রেস বিধায়কদের

আজ সকাল সাড়ে ১০টায় আস্থা ভোটের রায় দেবে সুপ্রিম কোর্ট।

হতভম্ব সোনিয়া, রাগ গিয়ে পড়ল শরদের উপরে

হতভম্ব সোনিয়া, রাগ গিয়ে পড়ল শরদের উপরে

শনিবার সকালে মহারাষ্ট্র রাজনীতির নাটকীয় বদলের পর হতভম্ব সোনিয়া গান্ধী। পুরো ঘটনায় শরদ পাওয়ারের উপর অসন্তুষ্ট সোনিয়া গান্ধী। পাওয়ারের ব্যবহারে বেশ কয়েকটি খুঁত উঠে আসছে কংগ্রেস নেতৃত্বের স্ক্যানারে।

অজিত পাওয়ার: এনসিপির সঙ্গে সম্পর্ক এবং…

অজিত পাওয়ার: এনসিপির সঙ্গে সম্পর্ক এবং…

অজিত পাওয়ার ধরেই নিয়েছিলেন তিনিই শরদ পাওয়ারের উত্তরসূরী।

রাজনীতির ‘অবেদনে’ গণতন্ত্র অজ্ঞান

রাজনীতির ‘অবেদনে’ গণতন্ত্র অজ্ঞান

নিজেদের আসন কম থাকলেও নীতির প্রশ্নে আপস করা দলগুলোর কাছ থেকে কীভাবে কম খরচে বিধায়ক ভাঙানো যায়, সে অঙ্ক দারুণভাবে রপ্ত করেছে দেশের সর্ববৃহৎ রাজনৈতিক শক্তি।

অজিত পাওয়ার বিশ্বাসঘাতক, দল ও পরিবারে ভাঙন ধরেছে: সুপ্রিয়া সুলে

অজিত পাওয়ার বিশ্বাসঘাতক, দল ও পরিবারে ভাঙন ধরেছে: সুপ্রিয়া সুলে

'খুব খারাপ সময়ও দলের কর্মীরা শরদ পাওয়ারের সঙ্গে ছিলেন। কিন্তু, অজিত পাওয়ারের বিজেপির প্রতি সমর্থনের সিদ্ধান্ত সত্যিই বড় ধাক্কা।' দাবি শরদ কন্যার।

Advertisement

ট্রেন্ডিং
BIG NEWS
X